ঢাকা , ১২ ২০১৯ ,

নোবেলকে 'থাপ্পর' দিতে চাইলো কলকাতার শিল্পীরা

বায়ান্ন | ৬ Augu, ২০১৯ ৬:২৭ অপরাহ্ন | আপডেট : ৬ Augu, ২০১৯ ৬:২৭ অপরাহ্ন
feature-top

প্রায় এক বছর আগে দেয়া নোবেলের এক সাক্ষাৎকার হঠাৎ ভাইরাল করে নোবেলকে হেনস্তা করছে কলকাতার শিল্পীরা। ঐ সময়ে জাতীয় সঙ্গীত নিয়ে নিজের মতামত দেন সাম্প্রতিক সময়ে দুই বাংলার সবচে জনপ্রিয় কন্ঠশিল্পী নোবেল। এখন সেই সাক্ষাৎকারের একটি ভিডিও অংশ ভাইরাল করে নোবেলকে বেকায়দায় ফেলার চেষ্টা করা হচ্ছে।

বিষয়টি নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় সমালোচনা হলেও কলকাতার কণ্ঠশিল্পী ইমন চক্রবর্তী যেন এবার মাত্রাটা বাড়িয়ে দিলেন। ফেসবুক পোস্টে নোবেলকে সামনে পেলে মারধরের ইচ্ছার কথা জানান তিনি৷

সম্প্রতি জি বাংলার রিয়ালিটি শো ‘সা-রে-গা-মা-পা’ শেষ হয়েছে। কন্ঠে-গানে ব্যাপক সাড়া ফেললেও এতে, নোবেলকে তৃতীয় করা হয়েছে। এই ফলাফলে মোটেও খুশি নন কোটি-কোটি ভক্ত-অনুরাগী৷ অনেকের দাবি, নোবেলের সঙ্গে নাকি দুর্ব্যবহার করেছে ওই চ্যানেল কর্তৃপক্ষ৷ কৃতিদের যোগ্যতা নির্ণয়ও সঠিকভাবে হয়নি বলেই দাবি অনেকের৷

এই আলোচনার মধ্যেই আসে জাতীয় সঙ্গীত বিতর্ক। এতে, নোবেল বলেছিলেন, "রবীন্দ্র নাথের লেখা জাতীয় সঙ্গীত 'আমার সোনার বাংলা' যতটা না দেশকে এক্সপ্লেইন করে তারচেয়ে কয়েক হাজার গুণে এক্সপ্লেইন করে প্রিন্স মাহমুদ স্যারের লেখা এই গানটা।" এমনকী এই গানটিই বাংলাদেশের জাতীয় সংগীত হোক, এমন দাবিতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় চত্বরে মিছিলও হয়েছিল বলে জানান নোবেল।

নোবেলের মন্তব্যের বিরোধিতায় সোশ্যাল মিডিয়ায়, ভারতীয় শিল্পী ইমন চক্রবর্তী একটি ভিডিও পোস্ট করে ক্যাপশনে লেখেন, 'সরি টু সে নোবেলকে সামনে পেলে থাপরাতাম।' 

ঐ সাক্ষাৎকারে কন্ঠশিল্পী নোবেল বলেন, বাংলাদেশের জাতীয় সঙ্গীত নিয়ে বিভিন্ন সময়ে একাধিকবার পরিবর্তনের দাবি উঠেছিল। এখনো অনেকেই, জাতীয় সঙ্গীত পরিবর্তন চান বলে দাবি করেন নোবেল।

রাখা

আরও খবর »