ঢাকা , ১৬ ২০১৯ ,

বিশ্বের ৪৯ দেশের পর্যটক সৌদি ভ্রমণ করতে পারবেন

বায়ান্ন অনলাইন রিপোর্ট | ৪ অক্টোবর, ২০১৯ ১১:০১ পূর্বাহ্ণ | আপডেট : ৪ অক্টোবর, ২০১৯ ১২:০৯ অপরাহ্ন
feature-top

সারা বিশ্বের সাথে অর্থনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সহযোগিতার মাধ্যমে যোগাযোগের বন্ধন আরও দৃঢ় করতে আগ্রহী সৌদি আরব। তারই অংশ হিসেবে ৪৯ দেশের নাগরিকদের জন্য সৌদি ভিসা উন্মুক্ত করে দেয়া হয়েছে। অনলাইনে ৪৪০ সৌদি রিয়ালের মাধ্যমেই সহজেই এ ভিসা পাওয়া যাবে। তবে বয়স হতে হবে ১৮ বা তার ওপরে। নিচে হলে অবশ্যই অভিভাবক থাকতে হবে সঙ্গে। তেল নির্ভর অর্থনীতি থেকে বেরিয়ে আসতে চাইছে সৌদি আরব। তাছাড়া সৌদির প্রত্যাশা বিশ্বও সত্যিকারের আরব সংস্কৃতি সম্পর্কে জানার সুযোগ পাক। যে জন্যই পর্যটন শিল্পের ওপর গুরুত্ব দিচ্ছে উপসাগরীয় এ দেশটি।

৪৯ দেশের জন্য উন্মুক্ত হলেও পবিত্র মক্কা ও মদীনা শহর ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা থাকছে অমুসলিমদের। নারীদের আবায়া পরিধানের বাধ্যবাধকতা না থাকলেও শালীন পোশাক পড়তে হবে। এতদিন শুধু হজ-ওমরায় বিপুল সংখ্যক মুসলিমের সমাগম ঘটতো দেশটিতে।

সৌদি কমিশন ফর টুরিজম অ্যান্ড হেরিটেজের চেয়ারম্যান আহমেদ আল খতিব বলেন, পর্যটন দিবসে এই ঐতিহাসিক স্থান থেকে আনন্দের সাথে ঘোষণা দিচ্ছি, বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তের পর্যটকদের জন্য উন্মুক্ত করে দেয়া হলো সৌদি আরব।

সৌদি আরব ভ্রমণে যা জানা প্রয়োজন:

১. যৌনতা ও পোশাকে নগ্নতা পরিহার করতে হবে

২. উচ্চ শব্দে এবং নামাজের সময় গান বাজানো যাবে না

৩. যত্রতত্র থুতু ও ময়লা ফেলা যাবে না

৪. বয়স্ক আর প্রতিবন্ধীদের আসনে বসলে জরিমানা

৫. গণপরিবহণ ও দেয়ালে লেখালেখি নিষিদ্ধ

৬. পাবলিক প্লেসে আগুন জ্বালানো যাবে না

৭. অনুমতি ছাড়া ছবি তোলা কিংবা ভিডিও ধারণ নিষিদ্ধ

৮. মদপান নিষিদ্ধ

এদিকে বর্তমানে দেশটির পর্যটন খাত থেকে আসে জিপিডির ৩ শতাংশ। প্রতিবছর ৪ কোটি মানুষ ভ্রমণ করে সৌদিতে। এক দশকের মধ্যেই এ সংখ্যা ১০ কোটিতে উন্নীত করতে চায় দেশটি। এর ফলে এ খাতে কর্মসংস্থানের সুযোগ হবে ১০ লাখ সৌদির। ২০৩০ এর মধ্যে সরকারি-বেসরকারি উদ্যোগে ৫ লাখ হোটেল নির্মাণ করতে চায় সৌদি সরকার।

এস মুন্নী

feature-top
feature-top

আরও খবর »

feature-top