Bayanno Tv
শুক্রবার, ১৪ মে ২০২১, ৩১ বৈশাখ ১৪২৮
×

১১০ কিলোমিটার রিকশা চালিয়ে সন্তানকে নিয়ে হাসপাতালে বাবা

  বায়ান্ন ডেস্ক    ১৮ এপ্রিল ২০২১, ১৩:০৭

অসহায়

অ্যাম্বুলেন্স ভাড়ার টাকা না থাকায় ৯ ঘণ্টা রিকশা চালিয়ে ঠাকুরগাঁও থেকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে অসুস্থ সন্তানকে নিয়ে আসেন তারেক ইসলাম নামে এক অসহায় রিকশা চালক বাবা।

শনিবার সকাল ৬টার দিকে শিশু সন্তান নিয়ে বাসা থেকে বের হন বাবা তারকে।  ১১০ কিলোমিটারেরও বেশি পথ পাড়ি দিয়ে বিকেল সোয়া ৩টার দিকে রংপুরে পৌঁছান তিনি।

তারেক ১২ বছর বয়স থেকেই রিকশা চালিয়ে বাবাকে সংসার সামলানোর যুদ্ধে সাহায্য শুরু করেন। বর্তমানে লকডাউন পরিস্থিতিতে ঠিকমতো রিকশা চালাতে না পেরে অসহনীয় কষ্ট নেমে এসেছে তার পরিবারে।

শিশুটির বাবা তারেক বলেন, আমার মেয়ে জান্নাতের বয়স সাত মাস।শুক্রবার রাতে ঠাকুরগাঁও সদর হাসপাতাল থেকে সন্তানকে নিয়ে বাসায় যাই। বাচ্চার অবস্থা দেখে আমি চিন্তিত হয়ে পড়ি। কিন্তু লকডাউনোর কারণে আমার অবস্থা এতটাই খারাপ কালকে খাবারের টাকাটা আমার কাছে নেই। এ অবস্থায় আমি কীভাবে বাচ্চাটাকে নিয়ে এত দূরের রাস্তা আসব ভেবে পাচ্ছিলাম না। অ্যাম্বুলেন্সের টাকা জোগাড় করতে না পারায় সন্তানকে বাঁচানোর জন্য রিকশা চালিয়ে রংপুরে নিয়ে আসছি।

জানা যায়, গত ১৩ এপ্রিল শিশু জান্নাত রক্ত পায়খানা করায় তাকে ঠাকুরগাঁও সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে একদিন চিকিৎসা দেওয়ার পর উন্নত চিকিৎসার জন্য জান্নাতকে রংপুরে স্থানান্তর করেন। কিন্তু লকডাউন পরিস্থিতিতে অ্যাম্বুলেন্স ভাড়ার টাকা না থাকায় দিশাহারা হয়ে বাবা তারেক অবশেষে নিজেই রিকশা চালিয়ে সন্তানকে নিয়ে আসেন রংপুরে।

বর্তমানে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পাঁচতলার শিশু বিভাগে (১৮নং ওয়ার্ড) শিশু জান্নাত ভর্তি আছে।

শিশু জান্নাতের চিকিৎসার জন্য সাহায্য করতে চাইলে বিকাশ করতে পারবেন এ নম্বরে (০১৭৭৩৭২২৬০১)

অসহায় পরিবারের পাশে দাঁড়াতে যোগাযোগ করুন ০১৩২০৫৪১১০৩ নম্বরে।

মুনিয়া

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র

প্রধান সম্পাদকঃ সৈয়দ আশিক রহমান
বেঙ্গল টেলিভিশন লিমিটেড

৪৩৭ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০২১ | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।