Bayanno Tv
বুধবার, ১৪ এপ্রিল ২০২১, ১ বৈশাখ ১৪২৮
×

জনসন অ্যান্ড জনসনের এক ডোজের টিকা নিরাপদ

  বায়ান্ন অনলাইন ডেস্ক ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ০৯:৪০

জনসন অ্যান্ড জনসনের এক ডোজের টিকা নিরাপদ

জনসন অ্যান্ড জনসনের তৈরি এক ডোজের কোভিড নাইনটিনের টিকা নিরাপদ ও কার্যকরী। বুধবার এক পর্যালোচনায় এ তথ্য জানিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের খাদ্য ও ওষুধ নিয়ন্ত্রণ কর্তৃপক্ষ-এফডিএ।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি জানিয়েছে, এফডিএর কাছ থেকে সবুজ সংকেত পাওয়ার কিছুদিনের মধ্যেই যুক্তরাষ্ট্রে করোনার তৃতীয় টিকা হিসেবে জনসন অ্যান্ড জনসনের এক ডোজের টিকা অনুমোদন পাবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

এরই মধ্যে ফাইজার-বায়োএনটেক ও মডার্নার টিকার অনুমোদন দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। তবে, ফাইজার ও মডার্নার টিকার সঙ্গে জনসন অ্যান্ড জনসনের টিকার বড় পার্থক্য হলো-জনসন অ্যান্ড জনসনের টিকা সাধারণ রেফ্রিজারেটরে সংরক্ষণ করা যাবে। এতে করে অন্য টিকাদের তুলনায় সাশ্রয়ী বলা চলে এই টিকাকে।   

এর আগে গেল মাসে টিকার ট্রায়াল পরীক্ষামূলক প্রয়োগের ফলাফল প্রকাশ করে জনসন অ্যান্ড জনসন।

বিশ্বের অন্যতম বৃহৎ ফার্মাসিউটিক্যাল জনসন অ্যান্ড জনসনের মালিকানাধীন বেলজিয়ামভিত্তিক প্রতিষ্ঠান জানসেন জানিয়েছে, গুরুতর আক্রান্ত কোভিড-১৯ রোগীর ক্ষেত্রে জনসন অ্যান্ড জনসনের টিকা দারুণ কার্যকর বলে প্রমাণ পাওয়া গেছে।

এফডিএর কাছে টিকার ট্রায়ালের বিস্তারিত তথ্য জমা দেয় জানসেন। এরপর নিজেদের পর্যবেক্ষণ প্রকাশ করে এফডিএ। তাতে দেখা যায়, করোনার উপসর্গ থাকা এবং গুরুতর অসুস্থ রোগীদের ওপর জনসন অ্যান্ড জনসনের টিকা প্রয়োগ করা হলে ইতিবাচক ফল মিলবে।

জনসন অ্যান্ড জনসনের টিকার ট্রায়াল হয়েছে যুক্তরাষ্ট্র, দক্ষিণ আফ্রিকা ও ব্রাজিলে। তিন ট্রায়ালেই করোনার সবচেয়ে খারাপ পরিণতির বিরুদ্ধে একই রকম উচ্চমাত্রার কার্যকারিতা দেখা গেছে। তবে, দক্ষিণ আফ্রিকা ও ব্রাজিলে করোনার বিভিন্ন ধরন বা ভ্যারিয়্যান্ট বেশি থাকায় ট্রায়ালে জনসন অ্যান্ড জনসনের টিকার সামগ্রিক সুরক্ষার মাত্রা ছিল তুলনামূলকভাবে কম।

জনসন অ্যান্ড জনসনের টিকার ট্রায়ালের ফলাফলে দেখা গেছে এটি গুরুতর অসুস্থতা প্রতিরোধে ৮৫ ভাগ কার্যকরী। তবে, সামগ্রিকভাবে মাঝারি মাত্রার অসুস্থতা প্রতিরোধের ফলাফল এর সঙ্গে যুক্ত করা হলে এই টিকা ৬৬ ভাগ কার্যকরী। ফলাফল নির্ধারণে টিকা দেওয়ার অন্তত ২৮ দিন পরের ফলাফল বিবেচনা করা হয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্রে জনসন অ্যান্ড জনসনের টিকার অনুমোদন এফডিএ দেবে কি না তা নির্ভর করছে একটি পরামর্শক কমিটির পর্যালোচনার পর। আগামী শুক্রবার বৈঠকে বসতে পারে ওই বিশেষজ্ঞ কমিটি।

 

এসএন

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র

প্রধান সম্পাদকঃ সৈয়দ আশিক রহমান
বেঙ্গল টেলিভিশন লিমিটেড

৪৩৭ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০২১ | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।