Bayanno Tv
বৃহস্পতিবার, ০৫ আগস্ট ২০২১, ২১ শ্রাবণ ১৪২৭
×

অলিম্পিকে ইতিহাস গড়তে যাচ্ছেন হাবার্ড

  বায়ান্ন স্পোর্টস ডেস্ক ২১ জুন ২০২১, ১৬:৩২

ফাইল ছবি

বেড়েই চলেছে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ। এমন অবস্থায় অধিকাংশ মানুষের মতামত উপেক্ষা করেই টোকিও অলিম্পিক গেমস আয়োজনে অনড় জাপানি কর্তৃপক্ষ। শঙ্কা, অনিশ্চয়তা আর আতঙ্ক উপেক্ষা করেই অংশগ্রহণকারী দলগুলো সেখানে পৌঁছাতে শুরু করে দিয়েছে। এবারের গেমসে অন্যরকম ইতিহাস গড়তে যাচ্ছে নিউজিল্যান্ড। দেশটির হয়ে এই প্রথম কোনো রূপান্তরকামী অ্যাথলেট অংশ নিতে যাচ্ছেন। 

অলিম্পিকের ইতিহাসে প্রথম রূপান্তরকামী অ্যাথলেট হতে যাচ্ছেন লরেল হাবার্ড। যিনি পুরুষ থেকে নারীতে রূপান্তরিত হয়েছেন। এই খবর শুনে বা দেখে অনেকেই অনেক কিছু ভাবতে শুরু করেছেন। মনে প্রশ্ন উঠতে পারে কী করে এটা সম্ভব হচ্ছে? কিন্তু এটাই সত্যি হাবার্ড টোকিও অলিম্পিকে নিউজিল্যান্ড নারী দলের জন্য নির্বাচিত হয়েছেন। ৪৩ বছর বয়সী হাবার্ড ২০১৩ সালে রূপান্তর হওয়ার আগে পুরুষদের ইভেন্টে প্রতিযোগিতা করেছেন।

২০১৫ সালে আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটি একটি গাইডলাইন প্রকাশ করেন- তাতে বলা আছে, যদি কোনো পুরুষ নিজের লিঙ্গ পরিবর্তন করে নারী হয় তাহলে বিনা পরীক্ষাতে তাকে নারী বিভাগে নামতে দিতে হবে। শুধুমাত্র টেস্টোস্টেরন লেভেল দেখা হতে পারে। গভর্নিং বডি বাছাইয়ের প্রয়োজনীয় বিষয়াদি সংশোধন করার পর নিজের জায়গা নিশ্চিত করেন হাবার্ড।

এই সংশোধনের অর্থ হলো, কোভিড-১৯ প্রভাবের কারণে অ্যাথলেটরা ছয়টির পরিবর্তে চারটি প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করতে পারবেন। সুপার-হেভিওয়েট হাবার্ড ২০১৭ সালে বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপে রৌপ্য পদক জেতেন। তার বর্তমান বিশ্ব র‌্যাংকিং ১৭।

র‌্যাংকিংয়ে তার চেয়ে এগিয়ে থাকা অনেক প্রতিদ্বন্দ্বী টোকিও গেমসে থাকছেন না। কারণ প্রত্যেক ক্যাটাগরিতে কেবল একজন অ্যাথলেট পাঠাতে পারছে প্রতিটি দেশ।

এএ

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র

প্রধান সম্পাদকঃ সৈয়দ আশিক রহমান
বেঙ্গল টেলিভিশন লিমিটেড

৪৩৭ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০২১ | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।