Connect with us

উত্তর আমেরিকা

জি-২০ সম্মেলনে ঐক্য ও অর্থনীতির ওপর জোর বাইডেনের

Avatar of author

Published

on

জো বাইডেন

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন জি-২০ শীর্ষ সম্মেলনে ইউক্রেনের জন্য বৃহত্তর বৈশ্বিক সমর্থনের ওপর জোর দিয়েছেন। তিনি যুক্তি দিয়েছেন যে, এ সংঘাতের কারণে উন্নয়নশীল অর্থনীতিগুলো ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে। ভয়েস অব আমেরিকাকে শনিবার (৯ সেপ্টেম্বর) দেয়া এক সাক্ষাৎকারে এমন কথা জানিয়েছেন মার্কিন জাতীয় নিরাপত্তা পরিষদের মুখপাত্র জন কার্বি।

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন এবং চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং এর অনুপস্থিতিতে ভারতের নয়াদিল্লিতে অনুষ্ঠিত হচ্ছে এবারের জি-২০ শীর্ষ সম্মেলন। তাদের এ অনুপস্থিতি সম্মেলনের ফলাফলকে হয়তো প্রভাবিত করতে পারে।

জি-২০ সম্মেলনের ফাঁকে ১১ই সেপ্টেম্বর, ২০০১ হামলার ২২তম বার্ষিকীতে আলাস্কায় সামরিক বাহিনীতে বাইডেনের পরিকল্পিত সফর সম্পর্কেও কার্বি কথা বলেছেন। মার্কিন জাতীয় নিরাপত্তা পরিষদের মুখপাত্র জন কার্বির দেয়া সাক্ষাৎকারটি সম্পাদনা করে পাঠকদের জন্য তুলে ধরা হলো-

প্রশ্ন: জি-২০ শীর্ষ সম্মেলন দিয়ে, যার থিম নির্ধারণ করা হয়েছে ঐক্যের। কিন্তু আপনি কি আমাদের ব্যাখ্যা করতে পারেন যে কীভাবে যুক্তরাষ্ট্র এবং অন্যান্য দেশগুলি দুটি প্রধান নেতার অনুপস্থিতিতে একটি ঐকমত্যে পৌঁছাতে পারে?

কার্বি: আপনি সম্ভবত রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন এবং চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং এর কথা বলছেন। রাশিয়া এবং চীন উভয়ই এখানে তাদের বিভিন্ন স্তরের কর্মীদের মাধ্যমে জি-২০ সম্মেলনে প্রতিনিধিত্ব করছে। তাই তারা এখনও এখানে আছে এবং অংশগ্রহণ করছে। তারা আলোচনায়ও থাকছে। তাই আমরা জি-২০ এর সকল সদস্যের সাথে কিছু গুরুত্বপূর্ণ অগ্রাধিকার নিয়ে কাজ করতে সক্ষম হওয়ার অপেক্ষায় রয়েছি, যেখানে ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি এবং অবশ্যই প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন এই শীর্ষ সম্মেলনে আছেন।

Advertisement

প্রশ্ন: ইউক্রেনের পক্ষে সমর্থন জোগাড় করার জন্য প্রেসিডেন্ট বাইডেন জি-২০ দেশগুলোর কাছে যে যুক্তি দিচ্ছেন, তার একটা রূপরেখা কি দিতে পারেন?

কার্বি: বর্তমানে প্রেসিডেন্ট বাইডেনের একটি বড় লক্ষ্য, নিম্ন ও মধ্যম আয়ের দেশগুলোতে অর্থনৈতিক সুযোগ এবং বিনিয়োগের বিষয়টি নিশ্চিত করা। আমি জানি আপনি সম্ভবত ভাবছেন যে ইউক্রেনের সাথে এর কোন সম্পর্ক নেই। কিন্তু ইউক্রেনের বিষয়েও অনেক কিছু করার আছে, বিশেষত ইউক্রেনের যুদ্ধ খাদ্য নিরাপত্তা, জ্বালানি নিরাপত্তা, মুদ্রাস্ফীতির চাপের ক্ষেত্রে নিম্ন ও মধ্যম আয়ের দেশগুলোর উপর একটি বিশাল চাপ সৃষ্টি করেছে — আপনি সেই প্রভাবকে বাদ দিতে পারবেন না যে, পুতিনের যুদ্ধ বিশ্ব অর্থনীতিতে ব্যাপক এবং বিরূপ প্রভাব ফেলেছে। আর প্রেসিডেন্ট যা করতে চান – তা হলো, তিনি ইউক্রেনের যুদ্ধের কথা বিশেষভাবে উল্লেখ করবেন, কেননা এই যুদ্ধে ক্ষতিগ্রস্ত নিম্ন ও মধ্যম আয়ের দেশগুলোর জন্য বিনিয়োগের সুযোগ এবং অবকাঠামো উন্নয়নের জন্য ঋণ গ্রহণের সুযোগ রয়েছে, যা সর্বোচ্চ গুণগত মান নিশ্চিত করার পাশাপাশি স্বচ্ছ এবং এটি সত্যিকার অর্থে যতটা সম্ভব তাদের স্থানীয় চাহিদা পূরণ করবে। তাই, প্রেসিডেন্ট বাইডেন সম্পূর্ণরূপে ইউক্রেনের যুদ্ধকে আলোচনার মূল কেন্দ্রবিন্দুতে নিয়ে আসতে চান।

প্রশ্ন: ইন্দো-প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলে যুক্তরাষ্ট্রের সম্পৃক্ততার বিষয়ে, আপনি কি আমাদের কিছু বিশেষ উদ্যোগের কথা জানাবেন – শুধু সামরিক নয়, অর্থনৈতিক উদ্যোগগুলোর কথাও যদি বলেন এবং আপনি কি সেই সমালোচনার জবাবও দিতে পারেন যে অর্থনৈতিক সুযোগ প্রদানের জন্য চীনের মতো সংস্থান যুক্তরাষ্ট্রের কাছে নেই?

কার্বি: যুক্তরাষ্ট্র এবং আমাদের মিত্র এবং অংশীদারদের কাছে আমাদের জন্য উপলব্ধ অর্থনৈতিক সরঞ্জামগুলোর একটি বিস্তৃত পরিসর রয়েছে — সেইসাথে, এই বহুপাক্ষিক উন্নয়ন ব্যাংকগুলোর মাধ্যমে এবং ব্যালেন্স শিটকে আরও কার্যকর করার শর্তে আমরা এমন সংস্কারগুলো অনুসরণ করার চেষ্টা করছি, যাতে এই উন্নয়ন ব্যাংকগুলো নিম্ন ও মধ্যম আয়ের দেশগুলির জন্য আরও বিকল্প সংস্থান প্রদান করতে পারে। এটি অর্থনৈতিক উন্নয়ন এবং অবকাঠামো বৃদ্ধির ক্ষেত্রে যুক্তরাষ্ট্র বনাম চীন সম্পর্কে নয়। চীন বিশ্বব্যাংকের একটি শেয়ারহোল্ডার, চীনের এটি দেখার আগ্রহ থাকা উচিত যে দেশগুলোর কাছে আর্থিক সহায়তার পাশাপাশি বিশ্বাসযোগ্য, স্বচ্ছ ঋণের জন্য আরও কার্যকর বিকল্প বিশ্ব ব্যাংকের রয়েছে।

প্রশ্ন: যুক্তরাষ্ট্রের বিচক্ষণ অনুসন্ধানের জবাবে ভারত তাইওয়ানে চীনের আক্রমণের সম্ভাব্য প্রতিক্রিয়ার দিকে নজর দিচ্ছে- এমন প্রতিবেদনের প্রেক্ষিতে – এই শীর্ষ সম্মেলনে কি যুক্তরাষ্ট্র অন্যান্য জি-২০ সদস্যদের সাথে আলোচনা করছে?

Advertisement

কার্বি: সামরিক পদক্ষেপের পরিপ্রেক্ষিতে, তাইওয়ান বিষয়ে এই জি-২০ সম্মেলনে আলোচনা করা হচ্ছে না। যুক্তরাষ্ট্র এবং আমাদের নীতি সম্পর্কে কিছুই পরিবর্তন হয়নি। আমরা এক চীন নীতিকে সমর্থন করে যাচ্ছি। আমরা তাইওয়ানের স্বাধীনতাও সমর্থন করি না। তবে আমরা স্থিতাবস্থার কোনো পরিবর্তনকে একতরফাভাবে বা বলপ্রয়োগ করার মতো এমন কোন কিছুকে সমর্থন করি না। আর প্রেসিডেন্ট বাইডেনের বক্তব্য হল, তিনি তার বিদেশী নীতিতে যা করছেন, বিশেষ করে এখানে ইন্দো-প্যাসিফিক অঞ্চলে, তা হলো সংঘাত রোধ করার বিষয়ে। আমরা চীনের সাথে সংঘাত চাই না, আমরা ইন্দো-প্যাসিফিকের কারো সাথে বিরোধও চাই না।

প্রশ্ন: এবার প্রেসিডেন্টের ভিয়েতনাম সফরের দিকে আপনার একটু মনোযোগ আকর্ষণ করতে চাই। আসন্ন সফরটি হতে যাচ্ছে একটি ঐতিহাসিক সফর এবং এই সফরে অনেক বড় বড় চুক্তি স্বাক্ষর, ব্যাপক কৌশলগত অংশীদারিত্ব গঠন নিয়ে আলোচনা করা হবে। যুক্তরাষ্ট্রের মতো একটি উদার গণতান্ত্রিক দেশ কীভাবে ভিয়েতনামের মতো একটি কমিউনিস্ট দেশের সাথে একটি মজবুত সম্পর্ক স্থাপন করতে পারে?

কার্বি: সম্পর্কটা কেমন হয়েছে তা একবার দেখুন। এটি গত এক দশক ধরে বেড়ে চলেছে। আর ভিয়েতনামিরা চায় যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে আরও শক্তিশালী সম্পর্ক। ভিয়েতনামিরা এই অঞ্চলে অর্থনৈতিক এবং নিরাপত্তার দৃষ্টিকোণ থেকে যুক্তরাষ্ট্রের অনেক উদ্বেগ ভাগ করে নেয় । আমরাও অনেক আগ্রহের কথা ভাগ করে নিই; বিশেষ করে চীনের আচরণের বিষয়টিসহ কিছু চ্যালেঞ্জের বিষয়ে আমাদের একটি অভিন্ন দৃষ্টিভঙ্গি রয়েছে। সাম্প্রতিক কয়েক দশক ধরে আমাদের দুই দেশকে একসঙ্গে কাজ করতে দেখাটা সত্যিই বেশ চমকপ্রদ ঘটনা। প্রেসিডেন্ট তার এই সফর নিয়ে খুব উত্তেজিত, এটি নিঃসন্দেহে একটি গুরুত্বপূর্ণ কৌশলগত অংশীদারিত্ব। আমরা এটিকে পরবর্তী ধাপে নিয়ে যেতে চাই।

Advertisement

উত্তর আমেরিকা

ইউক্রেন, ইসরায়েলকে সামরিক সহায়তা দিতে যুক্তরাষ্ট্রে বিল পাস

Avatar of author

Published

on

ইউক্রেন, ইসরায়েল ও তাইওয়ানকে সামরিক ও মানবিক সহায়তা দেয়ার জন্য যুক্তরাষ্ট্রের পার্লামেন্টের নিম্নকক্ষ প্রতিনিধি পরিষদে বহুল আলোচিত সাড়ে ৯ হাজার কোটি ডলারের বিল পাস হয়েছে।

স্থানীয় সময় শনিবার (২০ এপ্রিল) ভোটাভুটির পর এসব বিলে অনুমোদন দিয়েছেন মার্কিন আইনপ্রণেতারা। মধ্যপ্রাচ্যে চলমান সংঘাতের মধ্যে এমন সব সহায়তা বিল পাসে ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন বিরোধী রিপাবলিকান পার্টির নেতারা।

রোববার (২১ এপ্রিল) আন্তর্জাতিক বার্তাসংস্থা রয়টার্সের দেয়া প্রতিবেদন থেকে এ তথ্য জানা যায়।

ইউক্রেনের জন্য পাস হওয়া বিলটিতে দেশটিকে ৬ হাজার ৮০০ কোটি ডলারের সামরিক সহায়তা দেয়ার কথা বলা হয়েছে।

অন্যদিকে, ইসরায়েলের জন্য পাস হওয়া বিলটিতে দেশটিকে ২ হাজার ৬০৪ কোটি ডলারের সহায়তা দেয়ার কথা বলা হয়েছে। এর আওতায় ইসরায়েলকে সামরিক সহায়তা, আকাশ প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা ঢেলে সাজানো, মানবিক কার্যক্রমে সহায়তা করবে জো বাইডেন প্রশাসন। ভোটাভুটিতে বিলটির পক্ষে ভোট পড়েছে ৩১১টি আর বিপক্ষে ১১২ ভোট। চূড়ান্ত অনুমোদন পেতে বিলটি উচ্চকক্ষ সিনেটে পাঠানো হবে। এরপর লাগবে প্রেসিডেন্টের সায়।

Advertisement

বিল দুটি বাস্তবায়নে এখন মার্কিন সিনেটের অনুমোদন প্রয়োজন হবে। শিগগিরই তা সিনেটে তোলা হবে। সেখানে বিল দুটি পাস করার জন্য সিনেটরদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন বাইডেন। এরপরই জো বাইডেন বিলে সই করবেন। এর ফলে তা আইনে পরিণত হবে। তখন ইসরায়েল ও ইউক্রেনকে সামরিক ও মানবিক সহায়তা দিতে বাইডেন প্রশাসনের সামনে আর কোনো বাধা থাকবে না।

টিআর/

পুরো পরতিবেদনটি পড়ুন

উত্তর আমেরিকা

আদালতে ট্রাম্প, বাইরে নিজ দেহে আগুন দিলেন যুবক

Avatar of author

Published

on

যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের হাশ-মানি মামলার বিচার চলছে। নিউইয়র্কের অঙ্গরাজ্যে ম্যানহাটানের যে আদালতে এই বিচারকার্য চলছিলো তার বাইরের চত্বরে নিজের গায়ে আগুন দিয়েছেন ম্যাক্সওয়েল আজারেল্লো নামের এক যুবক।

শুক্রবার (১৯ এপ্রিল) নিউইয়র্কের স্থানীয় সময় দুপুর ১ টার পরে এই ঘটনা ঘটেছে বলে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি’র দেয়া প্রতিবেদন থেকে জানা যায়।

আজারেল্লো ফ্লোরিডার বাসিন্দা। এক সপ্তাহ আগে নিউইয়র্কে এসেছিলেন। নিউইয়র্ক অঙ্গরাজ্যে তার পূর্ব অপরাধের কোনো রেকর্ড নেই। তবে আজারেল্লো যে নিউইয়র্কে এসেছেন, তা ফ্লোরিডায় বসবাসরত তার পরিবারের সদস্যরার জানতেন না।

মার্কিন পর্ন অভিনেত্রী স্টর্মি ড্যানিয়েলের সঙ্গে একসময় ঘনিষ্টতা ছিল ডোনাল্ড ট্রাম্পের। ২০১৫ সালে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের প্রচারাভিযান শুরুর সময় এ ইস্যুতে মুখ বন্ধ রাখতে স্টর্মি ড্যানিয়েলকে ১ লাখ ৩০ হাজার ডলার ঘুষ প্রদান করেছিলেন বলে অভিযোগ রয়েছে ডোনাল্ড ট্রাম্পের বিরুদ্ধে। এই অভিযোগ সংক্রান্ত মামলাটিই পরিচিতি পেয়েছে ‘হাশ-মানি’ মামলা হিসেবে।

গতকাল দুপুরে ম্যানহাটানের ওই আদালতে যখন হাশ-মানি মামলার শুনানি চলছিল, সে সময় এজলাসে উপস্থিত ছিলেন ট্রাম্প। ওই ঘটনা ঘটার পর শুনানি স্থগিত করা হয়, ট্রাম্পও আদালত ত্যাগ করেন।

Advertisement

তবে আজারেল্লোর এই ঘটনায় আদালতের নিরাপত্তা ব্যবস্থায় কোনো ঝামেলা সৃষ্টি হয়নি। কয়েক ঘণ্টা স্থগিত থাকার পর বিকেলের দিকে ফের মামলার শুনানি কার্যক্রম শুরু করেন আদালত।

প্রপ্ত্যক্ষ্যদর্শীদের বরাত দিয়ে নিউইয়র্ক পুলিশের প্রধান জেফ্রি ম্যাডরে সাংবাদিকদের জানিয়েছেন, শুক্রবার সকাল থেকে একটি ব্যাগ এবং রাজনৈতিক প্রোপাগান্ডামূলক পুস্তিকা-প্ল্যাকার্ড নিয়ে আদালত এবং সংলগ্ন পার্ক এলাকায় ঘোরাঘুরি করছিলেন ম্যাক্সওয়েল আজারেল্লো। তারপর দুপুর ১ টার পর দিকে আদালত চত্বরের বাইরে ব্যাগ থেকে তরল দাহ্য পদার্থের বোতল বের করে নিজ গায়ে ছিটিয়ে আগুন ধরিয়ে দেন।

ম্যাডরে জানান, ট্রাম্পের বিচার চলার কারণে আদালতে যথেষ্ট সংখ্যক পুলিশের উপস্থিতি ছিল। কর্তব্যরত পুলিশরা ঘটনার অল্প সময়ের মধ্যে অগ্নি নির্বাপক দিয়ে আগুন নিভিয়ে তাকে হাসপাতালে পাঠানোর ব্যবস্থা নেন। বর্তমানে ম্যানহাটানের একটি হাসপাতালের বার্ন ইউনিটি চিকিৎসাধীন আছেন আজারেল্লো। তার অবস্থা আশঙ্কাজনক।

কোনো রাজনৈতিক দলের সঙ্গে সংশ্লিষ্টতা ম্যাক্সওয়েল আজারেল্লোর সংশ্লিষ্টতা পাওয়া যায়নি। আগুন দেয়ার আগে অন্য কারো সঙ্গে বা সামাজিক যোগাযোগামাধ্যমে কোনো কথা বলেননি আজারেল্লো। ফলে ঠিক কী কারণে তিনি এভাবে আত্মহননের পথ বেছে নিয়েছেন তা এখনও জানা যায়নি।

তার ব্যাগ থেকে তরল দাহ্য পদার্থ এবং কিছু পুস্তিকা-প্রচারপত্র উদ্ধার করা হয়েছে। এসব পুস্তিকার সবই ষড়যন্ত্র তত্ত্বনির্ভর এবং রাজনৈতিক প্রোপাগান্ডামূলক এসব পুস্তিকা-প্রচারপত্রে মূল বক্তব্য— ট্রাম্প এবং বাইডেন একই মুদ্রার এপিঠ-ওপিঠ এবং তারা যুক্তরাষ্ট্রে ফ্যাসিস্ট শাসন কায়েম করেছেন।

Advertisement

টিআর/

পুরো পরতিবেদনটি পড়ুন

আন্তর্জাতিক

‘ইরান হামলা বাড়াতে সফল হলেই যুদ্ধে জড়াবে যুক্তরাষ্ট্র’

Avatar of author

Published

on

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। সংগৃহীত ছবি

ইসরায়েলের বিরুদ্ধে হামলা বাড়িয়ে তাতে ইরান যদি সফল হয় তাহলে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র আর চুপ থাকবে না। ইসরাইল-ইরান যুদ্ধে জড়িয়ে পড়তে পারে।’ স্থানীয় সময় বুধবার মার্কিন গণমাধ্যম ওয়াল স্ট্রিট জার্নালে প্রকাশিত এক নিবন্ধে মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন এই সতর্কবার্তা উচ্চারণ করেছেন।

প্রকাশিত `Moment of Truth on Ukraine and Israel’ নিবন্ধে জো বাইডেন মূলত ইসরায়েল এবং ইউক্রেনে সামরিক সহায়তা বিল পাশের বিষয়টির পক্ষে যুক্তরাষ্ট্রের আইনপ্রণেতাদের  সমর্থন পাওয়ার চেষ্টা করছেন।

মধ্যপ্রাচ্যে ইসরাইলকে যুক্তরাষ্ট্রের সবচেয়ে শক্তিশালী অংশীদার হিসেবে আখ্যা দিয়ে বাইডেন বলেন,‘বন্ধুদের পরিত্যাগ করার সময় এখন নয়। ইউক্রেন ও ইসরায়েলের জন্য হাউসকে (মার্কিন কংগ্রেস) অবশ্যই জরুরি জাতীয় নিরাপত্তা আইন পাশ করতে হবে। পাশাপাশি গাজায় ফিলিস্তিনিদের জন্য মানবিক সহায়তারও ব্যাপক প্রয়োজন বলেও মত প্রকাশ করেন।

নিবন্ধে ইরান ও ইসরাইলের সংঘাত প্রসঙ্গে মার্কিন প্রেসিডেন্ট লিখেছেন ‘ইরান যদি ইসরাইলের ওপর তার আক্রমণ উল্লেখযোগ্যভাবে বাড়াতে সফল হয়, তা হলে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রও তাতে জড়িয়ে যেতে পারে। মধ্যপ্রাচ্যে আমাদের সবচেয়ে শক্তিশালী অংশীদার ইসরায়েল। দেশটির প্রতিরক্ষা দুর্বল হয়ে পড়লে আমরা তার পাশে দাঁড়াবো না-এমনটি ভাবাই যায় না।’

প্রসঙ্গত, গত ১ এপ্রিল সিরিয়ার রাজধানী দামেস্কে ইরানি কনস্যুলেটে বিমান হামলায়  ইরানের বিপ্লবী গার্ড বাহিনীর (আইআরজিসি) আল-কুদস ফোর্সের দুই শীর্ষ জেনারেলসহ মোট ১১ জন নিহত হন। হামলার দায় স্বীকার না করলেও ইসরায়েলকে এর জন্য দায়ী করে আসছে ইরান। ওই হামলার জবাবে গত ১৩ এপ্রিল মধ্যরাতে ইসরায়েলে শত শত  ড্রোন ও মিসাইল হামলা চালায় ইরান। হামলায় তেলআবিবের একটি বিমানঘাঁটি ধ্বংস হয়েছে বলে দাবি করেছে তেহরান।

Advertisement
পুরো পরতিবেদনটি পড়ুন

জাতীয়

বাংলাদেশ7 hours ago

সারাদেশে হিট স্ট্রোকে আট জনের মৃত্যু

তীব্র দাবদাহে সারাদেশে হিট স্ট্রোকে আক্রান্ত হয়ে ৮ জন মৃত্যুবরণ করেছেন । এর মধ্যে দিনাজপুরের ফুলবাড়ীতে দুইজন, পাবনায় একজন, মেহেরপুরে...

তিতাস-গ্যাস তিতাস-গ্যাস
জাতীয়9 hours ago

সোমবার গ্যাস থাকবে না যেসব এলাকায়

গ্যাস পাইপলাইনের জরুরি কাজের জন্য সোমবার (২২ এপ্রিল) ঢাকা জেলার বিভিন্ন স্থানে গ্যাস সরবরাহ বন্ধ থাকবে। রোববার (২১ এপ্রিল) গণমাধ্যমে...

প্রধানমন্ত্রী-শেখ-হাসনিা প্রধানমন্ত্রী-শেখ-হাসনিা
বাংলাদেশ10 hours ago

দেশের সার্বভৌমত্ব রক্ষায় বাংলাদেশ সর্বদা প্রস্তুত : প্রধানমন্ত্রী

যেকোনো বহিঃশত্রুর আক্রমণ থেকে দেশের সার্বভৌমত্ব রক্ষায় বাংলাদেশ সর্বদা প্রস্তুত ও দৃঢ়প্রতিজ্ঞ। বললেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, আমাদের বৈদেশিক...

দেশজুড়ে13 hours ago

সব ধরনের কোচিং সেন্টার বন্ধ ঘোষণা

প্রচন্ড তাপদাহে পুড়ছে চুয়াডাঙ্গা। জেলাটিতে আজ রোববার (২১ এপ্রিল) বিকাল ৩ টায়  সর্বোচ্চ তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ৪২ দশমিক ২...

দুর্ঘটনা13 hours ago

ঈদযাত্রায় সড়কে ঝরলো ৩২০ প্রাণ : বিআরটিএ

এবার ঈদযাত্রার ১৭ দিনে সারা দেশে ২৬৮টি সড়ক দুর্ঘটনায় ৩২০ জন নিহত হয়েছে বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ রোড ট্রান্সপোর্ট অথরিটি (বিআরটিএ)।...

আমির আমির
জাতীয়14 hours ago

কাতারের আমির আসছেন কাল, সই হবে ৬ চুক্তি ও ৫ সমঝোতা

আগামীকাল সোমবার (২২এপ্রিল ) দুই দিনের রাষ্ট্রীয় সফরে বাংলাদেশে আসছেন কাতারের আমির শেখ তামিম বিন হামাদ আল-থানি। একটি বিশেষ বিমানে...

অপরাধ14 hours ago

যেকোন সময় কারিগরি বোর্ডের চেয়ারম্যানকে জিজ্ঞাসাবাদ : ডিবি

তথ্য-উপাত্তে যদি জাল সার্টিফিকেট তৈরির সঙ্গে বাংলাদেশ কারিগরি বোর্ডের চেয়ারম্যান মো. আলী আকবর খানের সংশ্লিষ্টতা থাকার প্রমাণ পাওয়া যায়। তাহলে...

ব্যারিস্টার-সুমন ব্যারিস্টার-সুমন
আইন-বিচার14 hours ago

বেনজীরের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ নিয়ে যা বললেন ব্যারিস্টার সুমন

দুদকে ধাক্কা না দিলে কোনো কাজ হয় না। সাবেক পুলিশ মহাপরিদর্শক (আইজিপি) বেনজির আহমেদের বিরুদ্ধে ওঠা দুর্নীতির তদন্ত না হলে...

বাংলাদেশ14 hours ago

আজ দেশের আকাশে দেখা যাবে শিংওয়ালা ধূমকেতু

প্রায় ৭১ বছর পর আজ রোববার (২১ এপ্রিল) সূর্যের সবচেয়ে কাছে অবস্থান করবে ধূমকেতু ১২পি/পনস–ব্রুকস- যা ডেভিল ধূমকেতু বা শিংওয়ালা...

জাতীয়14 hours ago

হাসপাতাল প্রস্তুত রাখার নির্দেশ স্বাস্থ্যমন্ত্রীর

তীব্র দাবদাহের কারণে প্রতিকূল পরিস্থিতিতে সারা দেশের হাসপাতালগুলোকে প্রস্তুত রাখার নির্দেশ দিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডা. সামন্ত লাল সেন। রোববার (২১ এপ্রিল)...

Advertisement
আন্তর্জাতিক7 hours ago

পশ্চিমবঙ্গসহ ভারতের চার রাজ্যে রেড অ্যালার্ট জারি

বাংলাদেশ7 hours ago

সারাদেশে হিট স্ট্রোকে আট জনের মৃত্যু

ফুটবল8 hours ago

ম্যানসিটির কাছে হেরে থিয়াগো সিলভা কান্না

আওয়ামী লীগ8 hours ago

২৬ এপ্রিল কর্মসূচি দিলো আওয়ামী লীগ

ঢাকা8 hours ago

ব্যাগে ফ্যান নিয়ে বের হওয়ার পরামর্শ দিলেন হিট অফিসার

তথ্য-প্রযুক্তি9 hours ago

যুক্তরাষ্ট্রে টিকটক বন্ধের প্রস্তাব পাস

আন্তর্জাতিক9 hours ago

ইসরাইলি হামলায় ইরানের ক্ষয়ক্ষতির ছবি প্রকাশ

তিতাস-গ্যাস
জাতীয়9 hours ago

সোমবার গ্যাস থাকবে না যেসব এলাকায়

চট্টগ্রাম10 hours ago

বাংলাদেশে অনুপ্রবেশ করতে নাফ নদীর ওপাড়ে রোহিঙ্গাদের ঢল

প্রধানমন্ত্রী-শেখ-হাসনিা
বাংলাদেশ10 hours ago

দেশের সার্বভৌমত্ব রক্ষায় বাংলাদেশ সর্বদা প্রস্তুত : প্রধানমন্ত্রী

ব্যারিস্টার-সুমন
আইন-বিচার14 hours ago

বেনজীরের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ নিয়ে যা বললেন ব্যারিস্টার সুমন

প্রধানমন্ত্রী-শেখ-হাসিনা
জাতীয়4 weeks ago

গায়ের চাদর না পুড়িয়ে বউদের ভারতীয় শাড়ি পোড়ান: প্রধানমন্ত্রী

ফুটবল4 weeks ago

ইংল্যান্ডকে হারিয়ে ব্রাজিল কোচ জানালেন এটা মাত্র শুরু

টুকিটাকি1 month ago

জিলাপির প্যাঁচে লুকিয়ে আছে যে রহস্য!

অর্থনীতি1 month ago

বাজারে লেবুর সরবরাহ বেশি, তবুও দাম চড়া

রেশমা
বাংলাদেশ1 month ago

রাজধানীতে অচেতন অবস্থায় উদ্ধার কিশোরীর ঠিকানা খুঁজছে পুলিশ

হলিউড1 month ago

নীল দুনিয়ায় অভিনেত্রী সোফিয়ার রহস্যজনক মৃত্যু

ফুটবল2 months ago

জামালকে ঠিকঠাক বেতন দেয়নি আর্জেন্টাইন ক্লাব

টুকিটাকি2 months ago

রণবীরের ‘অ্যানিম্যাল’ দেখে শখ, মাইনাস ২৫ ডিগ্রিতে বসলো বিয়ের আসর

অর্থনীতি2 months ago

গরুর মাংসের দাম কেজি প্রতি পৌনে ৬ লাখ টাকা!

সর্বাধিক পঠিত