Connect with us

আন্তর্জাতিক

নওয়াজ নন, পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী হচ্ছেন শাহবাজ শরিফ

Avatar of author

Published

on

নওয়াজ-শরিফ,-শাহবাজ-শরিফ

নওয়াজ শরিফ নেতৃত্বাধীন পাকিস্তান মুসলিম লীগ নওয়াজ (পিএমএল-এন) ও পাকিস্তান পিপলস পার্টিসহ (পিপিপি) কয়েকটি দল পাকিস্তানের জোট সরকার গঠনের ঘোষণা দিয়েছে। নতুন সরকারের প্রধানমন্ত্রী হচ্ছেন নওয়াজ শরিফের ছোট ভাই শাহবাজ শরিফ। ইতোমধ্যে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে তাকে মনোনীত করা হয়েছে।

মঙ্গলবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) রাতে নওয়াজ শরিফ প্রধানমন্ত্রী প্রার্থী হিসেবে ছোট ভাই শাহবাজকে মনোনীত করার ঘোষণা দেন।

বুধবার (১৪ ফেব্রুয়ারি) আন্তর্জাতিক সংবাদ সংস্থা জিও টিভির প্রতিবেদন থেকে এ তথ্য জানা যায়।

প্রতিবেদন থেকে জানা গেছে, পিএমএল-এন থেকে প্রধানমন্ত্রী প্রার্থী হিসেবে নওয়াজ শরিফের নাম এতদিন আলোচনা হলেও সবাইকে চমকে দিয়ে শাহবাজকে মনোনীত করেছেন তিনি। একই সময় পাঞ্জাব প্রাদেশিক পরিষদের মুখ্যমন্ত্রী প্রার্থী হিসাবে দলের জ্যেষ্ঠ ভাইস প্রেসিডেন্ট ও মেয়ে মরিয়ম নওয়াজকে প্রার্থী হিসেবে ঘোষণা করেন তিনি।

মঙ্গলবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) রাতে দলগুলো তাদের বৈঠক শেষে যৌথ সংবাদ সম্মেলন করেছে। এদিন পিপিপির কো-চেয়ারম্যান আসিফ আলী জারদারি ও শাহবাজ শরিফ নতুন জোট সরকার গঠনের ঘোষণা দেন। এই দলগুলোর জোটই ইমরান খানের নেতৃত্বাধীন সরকারকে উৎখাত করে।

Advertisement

নির্বাচনের পর কোনো দলই একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা না পাওয়াতে গেলো ১১ ফেব্রুয়ারি পাঞ্জাবের তত্ত্বাবধায়ক মুখ্যমন্ত্রী মহসিন নাকভির বাড়িতে পিএমএল-এন প্রেসিডেন্ট শেহবাজ শরীফ ও পিপিপি চেয়ারম্যান বিলাওয়াল ভুট্টোর মধ্যে এক বৈঠকের পর কেন্দ্র ও পাঞ্জাবে জোট সরকার গড়তে সম্মত হন তারা। তবে বিলাওয়াল ভুট্টোকে নতুন সরকারের প্রধানমন্ত্রী করার শর্ত দেয়া হয়েছিল।

এরপর সোমবার (১২ ফেব্রুয়ারি) ও মঙ্গলবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) পাকিস্তান পিপলস পার্টি (পিপিপি) কেন্দ্রীয় কমিটির বৈঠকের পর চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত জানায়। মঙ্গলবার এক সংবাদ সম্মেলনে বিলাওয়াল জানান, কেন্দ্রীয় সরকার গঠনের ক্ষেত্রে পিপিপির যেহেতু ম্যানডেট নেই তাই তিনি প্রধানমন্ত্রী প্রার্থী হচ্ছেন না। তবে প্রধানমন্ত্রী নির্বাচনের ক্ষেত্রে পিএমএল-এনকে সাহায্য করবেন জানিয়ে পিপিপি প্রধান বলেন, পিপিপি তার ইশতেহার অনুযায়ী চলবে। আমরা সরকারের অংশ হবো না। এমনকি কেন্দ্রীয় সরকারে কোনো মন্ত্রীও আমাদের দল থেকে থাকবে না।

তিনি বলেন, আমাদের নীতিগত সিদ্ধান্ত হচ্ছে দেশকে সংকট থেকে বের করে আনা। আমাদের পাকিস্তানকে সমর্থন ও শক্তিশালী করতে হবে।

তার ওই ঘোষণার কয়েক ঘণ্টা পরই রাতে বৈঠকে বসেন পিএমএল-এন, পিপিপি, এমকিউএম-পি ও পাকিস্তান মুসলিম লিগ-কায়েদের (পিএমএল-কিউ) নেতারা। ওই বৈঠক শেষে জোট সরকার গঠনের ঘোষণা দেয়া হয়।

এদিকে ইমরান খানের দল তেহরিক-ই-ইনসাফ জানিয়েছে, পিএমডব্লিএম’র সঙ্গে জোট গঠন করে কেন্দ্র ও পাঞ্জাবে সরকার গঠন করবেন তারা।

Advertisement

 

Advertisement

আন্তর্জাতিক

হেলিকপ্টার দুর্ঘটনার কবলে ইরানের প্রেসিডেন্ট-পররাষ্ট্রমন্ত্রী

Published

on

হেলিকপ্টার দুর্ঘটনার কবলে পড়েছেন ইরানের প্রেসিডেন্ট ইবরাহিম রাইসি। তাঁকে বহনকারী হেলিকপ্টারটি দুর্ঘটনার কবলে পড়লে সেটি জরুরি ভিত্তিতে ‘হার্ড ল্যান্ডিং’ করে। রোববার (১৯ মে) ইরানের রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা ইরনা এ তথ্য জানায়।

ইরনার প্রতিবেদনে বলা হয়, ইরানের পূর্ব আজারবাইজান প্রদেশের সীমান্তবর্তী এলাকায় একটি বাঁধ উদ্বোধন শেষে ফেরার পথে তার হেলিকপ্টারটি জরুরিভিত্তিতে ‘হার্ড ল্যান্ডিং’ করে। তবে এতে হতাহত বা ক্ষয়ক্ষতির বিষয়ে তাৎক্ষণিকভাবে জানা যায়নি। ইবরাহিম রাইসি বেঁচে আছেন কিনা মারা গেছেন সে ব্যাপারেও সরকারিভাবে কোনো বিৃবতি দেয়নি প্রেসিডেন্টের দপ্তর।

তবে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আহমাদ ওয়াহিদি ইরানের রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনকে বলেছেন, দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে অনুসন্ধান ও উদ্ধারকারী দলের দুর্ঘটনাস্থলে পৌঁছাতে সময় লাগতে পারে। তিনি আশা প্রকাশ করে বলেন, দলটি শিগগিরই ঘটনাস্থলে পৌঁছে আরও তথ্য জানাবে।

ইরানের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় বলছে, হেলিকপ্টারটি গন্তব্যে পৌঁছার আগেই অবতরণে বাধ্য হয়েছে। বিরূপ আবহাওয়ার কারণে সেখানে এখনও উদ্ধারকর্মীরা পৌঁছাতে পারেননি।

ইরনার  প্রতিবেদনে বলা হয়,  ওই বাঁধ উদ্বোধন উপলক্ষ্যে  হেলিকপ্টারে প্রেসিডেন্ট রাইসার সফরসঙ্গী হিসেবে ছিলেন দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী হোসেইন আমিরাবদুল্লাহিয়ান, পূর্ব আজারবাইজান প্রদেশের গভর্নর মালেক রহমাতি, তাবরিজ জুমার নামাজের খতিব হোজ্জাতোলেস্লাম আল হাশেমসহ বেশ কয়েকজন উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা।

Advertisement

দেশটির রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যম আরও জানিয়েছে, এই বহরে তিনটি হেলিকপ্টার ছিল। যার মধ্যে দুটি নিরাপদে ফেরে। ইরানের জ্বালানিমন্ত্রী আলী আকবর মেহরাবিয়ান এবং আবাসন ও পরিবহণমন্ত্রী মেহেরদাদ বাজারপাস অন্য কর্মকর্তারা ওই দুই হেলিকপ্টারে নিরাপদে ফিরেছেন।

ইরনা নিউজের প্রতিবেদনে আরও বলা হয়, প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম রাইসিকে বহনকারী হেলিকপ্টারটি দিজমার নামের একটি বন ও পাহাড়ি অঞ্চলে বিধ্বস্ত হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। তবে ইরানের প্রেসিডেন্ট কী ধরনের হেলিকপ্টারে ভ্রমণ করছিলেন সেটি এখনো নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

এমআর//

পুরো পরতিবেদনটি পড়ুন

এশিয়া

যে কারণে ৮ মাসের বেতনের সমান বোনাস দেবে সিঙ্গাপুর এয়ারলাইনস

Published

on

ব্যবসা ভালো হওয়ায় সিঙ্গাপুর এয়ারলাইনস কর্মীদের ৮ মাসের বেতনের সমান বোনাস দেবে। সবশেষ অর্থবছরে সংস্থাটি ১৯৮ কোটি ডলার নিট মুনাফা অর্জন করায় এ ঘোষণা দেয়া হল।

শুক্রবার (১৭ মে) এক প্রতিবেদনে বিষয়টি নিশ্চিত করে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সংবাদমাধ্যম সিএনএন।

প্রতিবেদনে বলা হয়,  সিঙ্গাপুর এয়ারলাইনস তাৎক্ষণিকভাবে এ বিষয়ে কোনো মন্তব্য করতে রাজি হয়নি। তবে আয়ের বিবরণীতে সিঙ্গাপুর এয়ারলাইনস বলেছে,  চীন, হংকং, জাপান ও তাইওয়ানের মতো দেশ মহামারির পর তাদের সীমান্ত পুরোপুরি খুলে দিয়েছে। সে কারণে এসব দেশে ভ্রমণ বেড়েছে। মানুষের ভ্রমণ বেড়ে যাওয়ায় সিঙ্গাপুর এয়ারলাইনসও বড় ধরনের লাভের দেখা পেয়েছে।

সিঙ্গাপুর এয়ারলাইনসের সিইও গোহ চুন ফং বলেন, তাঁদের সব কর্মী নিরন্তর কাজ করায় এ সাফল্য অর্জিত হয়েছে। তাদের এই পরিশ্রমের কারণে মহামারির পরও বাজারে খুব ভালোভাবে ফিরে আসতে পেরেছে সিঙ্গাপুর এয়ারলাইনস।

আই/এ

Advertisement

 

পুরো পরতিবেদনটি পড়ুন

আন্তর্জাতিক

দুই পা ছাড়া এক হাত নিয়েই সুন্দরী প্রতিযোগিতায় তৃতীয় লিঙ্গের মডেল

Published

on

সংগৃহীত ছবি

তৃতীয় লিঙ্গের নারী মডেল আউম। পুরো নাম আমবুন আউ মায়খাও। ঈশ্বর জন্ম থেকেই তার দুই পায়ের নিচের অংশ ও এক হাত কেড়ে নিয়েছেন। তবে দমে যাননি তিনি। হার না মানা লড়াকু মনোভাবের কারণেই পেরেছেন সুন্দরী প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে। মিস ট্রান্স থাইল্যান্ড‍ ২০২৩ এর ফাইনালিস্টদের তালিকায়ও ছিলেন এই মডেল।

২০২৩ সালের ২৯ জুলাই থাইল্যান্ডের রাজধানী ব্যাংককের মাম্বো এন্টারটেইনমেন্ট হলে অনুষ্ঠিত হয় ওই মিস ট্রান্স থাইল্যান্ড প্রতিযোগিতা। শীর্ষ ২২ ফাইনালিস্টদের তালিকায় ছিলেন বেউং কান প্রদেশ থেকে উঠে আসা সুন্দরী আউম। তার লক্ষ্য ছিলো সেরা দশের তালিকায় থাকা। তবে পরে আর এগুতো পারেননি। ওই প্রতিযোগিতায় সেরা সুন্দরীর মুকুট পরেন সিংবুড়ি প্রদেশের পলি নথায়া।

 

গ্রান্ড ফিনালের সেরা দশে পৌঁছতে না পারলেও একটি সবার কাছে একটি মেসেজ পৌঁছে দিয়েছেন আউম। জীবনের আসল বিজয় অন্যকে হারানো নয়-এই চিরন্তন সত্যটি সমাজের কাছে তুলে ধরেন এই তৃতীয় লিঙ্গের মডেল।

শারীরিক প্রতিবন্ধী এই নারী মডেল দেখিয়ে দিয়েছেন-আসল বিজয় হচ্ছে-অতীতকে ভুলে গিয়ে বর্তমান অস্তিত্বকে নিয়ে চূড়ান্ত লক্ষ্যের দিকে এগিয়ে যাওয়া।

Advertisement

তাইতো আউমের অক্ষমতা তাকে প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করা থেকে বিরত করেনি। আউম শিরোপা জয়ের জন্য কতটা দৃঢ়প্রতিজ্ঞ ছিল  তা বিচারকরাও টের পেয়েছেন। র‌্যাম্প মডেলের বেশে সাবলিল ভাবে মঞ্চে ক্যাটওয়াক ও দলীয় নৃত্যপর্বে তার পারফরমেন্স ছিলো চোখে পড়ার মতো।

আউমের অধ্যাবসায় ও ইতিবাচক মনোভাব অনেকের মন জয় করেছে। যারা দুঃখ ও কষ্টের মধ্য দিয়ে যাচ্ছেন আউমের গল্পটি তাদের জন্য অনুপ্রেরণা হিসেবে কাজ করবে। কষ্ট ও বিভ্রান্তির মধ্যে থেকে কীভাবে এগিয়ে যাওয়া যায় তার জন্য উদাহরণ হতে পারে আউম।

 

সোশ্যাল মিডিয়ায় নেটিজেনদের অনেকে আউমের আত্মবিশ্বাস এবং দৃঢ় মনোভাবের  প্রশংসা করেছেন। একজন ব্যবহারকারী লিখেছেন, ‘অসম্ভব শক্তিশালী! প্রতিবন্ধী হয়ে জন্ম নেওয়ার পর যেসব কষ্ট ও নেতিবাচকতা আউমকে সহ্য করতে হয়েছিল তা কল্পনীয়। তবে আউম নিজের সক্ষমতা প্রমাণ করেছেন, সবকিছু সহ্য করেছেন এবং অবশেষে তার  ক্ষমতা নিয়ে যারা সন্দিহীন ছিলো তা ভুল বলে প্রমাণ করতে পেরেছেন।

আরেকজন লিখেছেন- সৌন্দর্য প্রতিযোগিতাকে আমি সব সময় অস্বস্তিকর বলে মনে করি। কিন্তু এটি এমন এক ধরণের প্রতিযোগিতা যেটি আমাকে বাকরুদ্ধ করে দিয়েছে। তুমি আগুন জালিয়ে রাখো সুন্দরী।

Advertisement

সুন্দরী প্রতিযোগিতায় হাত-পা ছাড়া একমাত্র প্রতিযোগি নন আউম। ২০২১ সালে মিস ইকুয়েডর প্রতিযোগি ভিক্টোরিয়া সালসেডোরের নামও জড়িয়ে আছে। ২০০১ সালে পাঁচ বছর বয়সে ভিক্টোরিয়া বৈদ্যুতিক দুর্ঘনায়  আহত হলে জীবন বাঁচাতে তার দুই ও এক কেটে ফেলা হয়।

এমআর//

পুরো পরতিবেদনটি পড়ুন

সর্বাধিক পঠিত