Connect with us

আন্তর্জাতিক

মসজিদুল হারাম ও নববীতে তারাবি-তাহাজ্জুদ যে ৮ ইমাম পড়াবেন

Avatar of author

Published

on

সৌদি আরবের মক্কায় অবস্থিত মসজিদুল হারামে রমজানে তারাবি, বিতর ও তাহাজ্জুদ পড়াবেন ৪ ইমাম। একই সঙ্গে মদিনায় অবস্থিত মসজিদে নববীতে রমজানে ইমামতি করবেন ৪ ইমাম। পবিত্র রমজানে ওমরা পালনের পাশাপাশি মসজিদুল হারামে ও নববীতে লাখ লাখ মানুষ ইতেকাফ করেন। তারা পুরো রমজান মাস ইবাদত-বন্দেগিতে কাটান। রমজান মাসে তারাবির পাশাপাশি রাতের তাহাজ্জুদ নামাজ রমজান মাসের অন্যতম আমল। এ কারণে হারামাইন কর্তৃপক্ষ আগে-ভাগেই জানিয়ে দেন কারা থাকছেন ইমামতির দায়িত্বে।

পবিত্র দুই মসজিদের পরিচালনা পর্ষদের পক্ষ থেকে তারাবির ইমামদের তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে। পরিচালনা পর্ষদের শিডিউল মেনে পুরো রমজানে নামাজ পড়াবেন এই ইমামেরা।

মসজিদে হারামে খতম তারাবি ও তাহাজ্জুদ নামাজের জন্য নির্ধারিত ৪ ইমাম হলেন- শায়খ আব্দুর রহমান সুদাইস, শায়খ আবদুল্লাহ জুহানি, শায়খ মাহের মুআইকিলি এবং শায়খ বান্দার বালিলা।

এদিকে মসজিদে নববীতে খতম তারাবি ও তাহাজ্জুদ নামাজের জন্য নির্ধারিত ৪ ইমাম হলেন- শায়খ আব্দুল্লাহ বুআইজান, শায়খ সালাহ আল-বুদাইর, আহমাদ বিন তালেব হুমাইদ, শায়খ আব্দুল মুহসিন কাসিম।

সৌদি আরবের ইসলামি বিষয়ক মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, দেশের বিভিন্ন অঞ্চলের ইমাম এবং মুয়াজ্জিনরা রোজাদারদের এবং অন্যদের জন্য ইফতার প্রকল্পের জন্য আর্থিক অনুদান সংগ্রহ করবেন না। নোটিশে মসজিদের অভ্যন্তরে ইফতারের সময় পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতার বিষয়ে আপোস করার বিষয়গুলি উত্থাপন করে, ইমাম ও মুয়াজ্জিনকে মসজিদের আঙ্গিনায় এই আয়োজনের তদারকি করার জন্য নির্দেশ দেয়া হয়েছে এবং ইফতার সমাপ্তির পরপরই পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা নিশ্চিত করার জন্য তাদের দায়িত্ব দেয়া হয়েছে।

Advertisement

মন্ত্রণালয়ের বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়েছে, পরিচ্ছন্নতার বিষয়ে উদ্বেগের কারণে মসজিদের ভিতরে ইফতারের আয়োজন করা উচিত নয়, তাই অস্থায়ী কক্ষ বা তাঁবুর ব্যবহার না করে মসজিদের আঙ্গিনায় একটি উপযুক্ত জায়গা তৈরি করা উচিত এবং সেখানে ইফতার করা উচিত।

রমজানে মসজিদুল হারাম ও নববীতে ইবাদতকারীদের আগমনকে ঘিরে বিশেষ প্রস্তুতি নিতে শুরু করেছে হারামাইন কর্তৃপক্ষ। মক্কা মেয়রের মুখপাত্র উসামা জাইতুনি জানিয়েছেন, রমজানে মুসল্লিদের ভিড় নিয়ন্ত্রণ, ভেতরে ও আশপাশের স্থান পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন রাখা, জরুরি বর্জ্য অপসারণসহ নানা সেবা দেওয়ার উদ্যোগ নিয়েছে মক্কা নগর কর্তৃপক্ষ। এরই মধ্যে প্রয়োজনীয় জনবল ও সরঞ্জাম গঠন করা হয়েছে।

জাইতুনি জানান, মক্কায় ১৮ হাজার প্রধান ও ছোট সড়ক, ৫৮টি টানেল ও ৭০টি সেতু রয়েছে। এসব রাস্তার ট্রাফিক নিয়ন্ত্রণে বড় নেটওয়ার্ক রয়েছে, যা সব সময় পরিচালনা, রক্ষণাবেক্ষণ ও পরিষ্কার রাখতে হয়। পাশাপাশি মক্কার দোকান ও রেস্তোরাঁর সব কিছুর বৈধতা নিশ্চিত করতে হয়। পবিত্র রমজান মাসে মুসল্লিদের সংখ্যা বাড়ায় এসব স্থানের গুরুত্ব আরো বৃদ্ধি পায়। চাঁদ দেখা সাপেক্ষে আগামী ১১ মার্চ পবিত্র রমজান শুরু হবে।

এবার রমজানে মসজিদের ভেতর ইফতার না করে বাহিরে কোনো খোলা জায়গা প্রাঙ্গনে ইফতারের নির্দেশনা জারি করেছে সৌদি কর্তৃপক্ষ।

এএম/

Advertisement
Advertisement

আন্তর্জাতিক

ইসরাইলে কর্মরত নাগরিকদের সতর্ক করলো যুক্তরাষ্ট্র-যুক্তরাজ্য

Avatar of author

Published

on

ইসরাইলের ওপর ইরানের হামলার শঙ্কায় দেশটিতে কর্মরত নিজ দেশের নাগরিকদের প্রতি ভ্রমণ সতর্কতা জারি করেছে যুক্তরাষ্ট্র।

যুক্তরাষ্ট্র দূতাবাস জানায়, ‘অধিকতর সতর্কতার অংশ হিসেবে’ দূতাবাস কর্মীদের জেরুজালেমের বাইরে যেতে নিষেধ করা হয়েছে।

১১ দিন আগে সিরিয়ায় ইরানি কনস্যুলেটে হামলা চালায় ইসরাইল। ওই হামলায় ১৩ জন নিহত হন। ইরান এর প্রতিশোধ নেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে।

যুক্তরাজ্যের পররাষ্ট্রমন্ত্রী লর্ড ক্যামেরন ইরানি পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে ফোন করে বিষয়টিকে আর বেশিদূর গড়াতে না দেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন।

ইসরাইল অবশ্য কনস্যুলেটে হামলার দায় স্বীকার করেনি। কিন্তু, ব্যাপকভাবে ধারণা করা হচ্ছে তারাই এর নেপথ্যে ছিল।

Advertisement
পুরো পরতিবেদনটি পড়ুন

আন্তর্জাতিক

সংসদের ভেতরে বিউটি পার্লার চান নারী এমপিরা!

Avatar of author

Published

on

সংসদের ভেতরেই বিউটি পার্লার খোলার দাবি জানিয়েছেন উগান্ডার নারী সংসদ সদস্যরা। মাঝে মধ্যে তাদের চুল এলোমেলো হয়ে যায়, আর তা  ঠিক করার জন্য পার্লামেন্টে বিউটি সেলুনের প্রয়োজন অনুভব করছেন তারা। বৃহস্পতিবার (১১ এপ্রিল) ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়।

বিবিসি বলছে, উগান্ডার পার্লামেন্টের নারী সদস্যরা (সংসদে) তাদের অংশগ্রহণ বাড়ানোর জন্য সংসদে একটি ইন-হাউস সেলুন খোলার দাবি জানিয়েছেন।

পূর্ব আফ্রিকার এই দেশটির পার্লামেন্টে সম্প্রতি জিম বা ব্যায়ামাগার চালু করা হয়েছে। কিন্তু নারী সংসদ সদস্যরা বলছেন, জোরালো ব্যায়াম তাদের চুলকে এলোমেলো করে দেয়, যার ফলে এখন অল্প সংখ্যক নারী সংসদ সদস্য এই সুবিধা ব্যবহার করতে ইচ্ছুক।

 

 

Advertisement
পুরো পরতিবেদনটি পড়ুন

আন্তর্জাতিক

ভূমধ্যসাগরে নৌকাডুবিতে প্রাণ গেলো ৯জনের

Avatar of author

Published

on

ছবি: এপি

ভূমধ্যসাগরের ল্যাম্পেডুসা দ্বীপে একটি নৌকাডুবির ঘটনায় ৯ জন মারা গেছেন।  বৃহস্পতিবার(১১ এপ্রিল) ওই দুর্ঘটনার কবলে পড়া ২২ জনকে উদ্ধার করা হয়েছে। এখনও ১৫ জন নিখোঁজ রয়েছেন। ইতালীয় উপকূলরক্ষীদের বরাত দিয়ে মার্কিন সংবাদমাধ্যম এপ ‘র প্রতিবেদনে এতথ্য জানা গেছে।

জীবিতদের বরাত দিয়ে জাতিসংঘ শরণার্থী বিষয়ক সংস্থা (ইউএনএইচসিআর) জানায়, স্টিল-বটম বোটটি গিনি, বুর্কিনা ফাসো, মালি ও আইভরি কোস্ট থেকে ৪৬ জন মানুষকে নিয়ে রোববার রাতে তিউনিসিয়ার স্ফ্যাক্স থেকে যাত্রা শুরু করেছিল। বুধবার সকালে  ভূমধ্যসাগরের ল্যাম্পেডুসা দ্বীপে নৌকাটি ডুবে যায়।

নৌকাডুবির উল্লেখযোগ্য ঘটনাবলি  

জাতিসংঘের অভিবাসন বিষয়ক আন্তর্জাতিক সংগঠন বলছে, চলতি বছরের ১১ মার্চ পর্যন্ত ইতালি যাওয়ার উদ্দেশ্যে সেন্ট্রাল ভূমধ্যসাগরীয় পথে ২২৭ জন মারা গেছেন। নতুনভাবে খবর পাওয়া নিখোঁজ ও সম্ভাব্য মৃতদের সংখ্যা এতে অন্তর্ভুক্ত নয়। ১ জানুয়ারি থেকে ভূমধ্যসাগরে মোট ২৭৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ সময়কালে ওই সমুদ্রপথে ইতালিতে পৌঁছেছেন মোট ১৯ হাজার ৫৬২ জন।

ইতালি যাওয়ার পথে ভূমধ্যসাগরে নৌকাডুবিতে বাংলাদেশির সংখ্যাও বাড়ছে। গত ২১ জুলাই অবৈধভাবে সাগর পাড়ি দিয়ে ইউরোপের ইতালি যাওয়ার সময় একটি নৌকাডুবির ঘটনায় অভিবাসনপ্রত্যাশী ১৭ জন বাংলাদেশির মৃত্যু হয়। লিবিয়ার উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলীয় উপকূল জুয়ারা থেকে অভিবাসপ্রত্যাশীদের নিয়ে ওই নৌকাটি ইউরোপের উদ্দেশ্যে যাত্রা করে ভূমধ্যসাগরে তিউনিশিয়ার উপকূলে ডুবে যায়। পরে ওই ডুবে যাওয়া নেীকা থেকে ১৭ বাংলাদেশির মরদেহ ও ৩৮০ জনের বেশি মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

Advertisement

এর আগে,গত ০৮ জুলাই অবৈধভাবে সাগর পাড়ি দিয়ে ইউরোপে যাওয়ার সময় আফ্রিকার  তিউনিশিয়ার উপকূলে এবটি নৌকাডুবির ঘটনা ঘটে। ডুবে যাওয়া ওই নৌকা থেকে অভিবাসনপ্রত্যাশী ৪৯ জন বাংলাদেশিকে তিউনিশিয়ার কোস্টগার্ড সদস্যরা উদ্ধার করে।

এরও আগে, ২০১৯ সালের মে মাসে লিবিয়া থেকে ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিয়ে ইতালি যাওয়ার পথে নৌকাডুবিতে অন্তত ৪০ বাংলাদেশি নাগরিকের মৃত্যু ঘটে।

কেন ভূমধ্যসাগর দিয়ে ইউরোপ?

অবৈধভাবে ইউরোপের দেশগুলোতে পৌঁছানোর পথে ভূমধ্যসাগরে নৌকাডুবির ঘটনা বেড়েই চলেছে। অভিবাসন প্রত্যাশীদের ঠেকাতে ভূমধ্যসাগরে নজরদারি বাড়লেও জীবনের ঝুঁকি নিয়ে অনেকে সাগর পাড়ি দিচ্ছেন। তবে ভূমধ্যসাগরে নৌকায় করে বহু মানুষের ইউরোপ অভিযাত্রা শেষ হচ্ছে সলিলসমাধিতে।

উন্নত জীবন আর বেকারত্বের অভিশাপ ঘোচাতে অবৈধভাবে যারা ইউরোপের দেশগুলোতে  প্রবেশ করতে চায়, তাদের জন্য সুবিধাজনক জায়গা হচ্ছে আফ্রিকার দেশ লিবিয়া।

Advertisement

দক্ষিণ এশিয়া ও আফ্রিকার বিভিন্ন অঞ্চল থেকে জীবিকা এবং ভাগ্যান্বেষণের জন্য অভিবাসনপ্রত্যাশীরা  জীবনঝুঁকি নিয়ে অবৈধ পথে ইউরোপের দিকে যাওয়ার জন্য এই রুট ব্যবহার করে থাকে। কারণ ভূমধ্যসাগরের সঙ্গে ইউরোপের প্রাকৃতিক সীমানা থাকায় এবং এখানে নজরদারি রাখা কঠিন হওয়ায়  এই রুটে অভিবাসনের প্রচেষ্টা সফল হওয়ার সম্ভাবনা বেশি।

তৃতীয় বিশ্বের অনেক দেশের নাগরিকেরা ভাগ্যের চাকা বদলানোর উদ্দেশ্য নিয়ে নানা উপায়ে লিবিয়া পৌঁছে।সাধারণত গ্রীষ্মের কাছাকাছি সময় আফ্রিকা থেকে ইউরোপে আসার প্রবণতা বেড়ে যায়

তারপর দেশটির  জুয়ারা উপকূল  থেকে নৌকায় করে ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিয়ে অনেকে ইতালি পৌঁছে থাকে। তবে ভূমধ্যসাগরের এরুট পৃথিবীর সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ পথগুলোর একটি। জীবনের ঝুঁকি নিয়ে নৌকায় করে ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিয়ে বহু মানুষের ইউরোপ অভিযাত্রা শেষ হচ্ছে সলিলসমাধিতে।

লিবিয়ায় সরকার ব্যবস্থা অস্থিতিশীল থাকায় এবং দেশটির উল্টো দিকে ইউরোপ হওয়ায় মানব পাচারকারীরা রুট হিসাবে লিবিয়ার উপকূলকে বেশি পছন্দ করে। সেখানে অনেক আন্তর্জাতিক পাচারকারী চক্র সক্রিয় রয়েছে।এসব চক্রের লোকজন জাল কাগজপত্র তৈরি করে,মিথ্যা তথ্য দিয়ে লোকজনকে ইউরোপে যাওয়ার জন্য উৎসাহিত করে।এজন্য তারা মূলত ইতালিকে বেছে নেয়।

পরিসংখ্যান বলছে, ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিয়ে যারা ইউরোপে পৌঁছায় তাদের ৮০ ভাগই জীবিকার সন্ধান পায়। অন্যদের অন্তত পাঁচ বছর নানা সংগ্রাম ও প্রতিবন্ধকতার মধ্য দিয়ে দিনাতিপাত করতে হয়। সামান্য কজনই এ দীর্ঘ সময় ধৈর্য ধরে ইউরোপে জীবিকার সন্ধান করে।

Advertisement
পুরো পরতিবেদনটি পড়ুন

জাতীয়

জাতীয়7 mins ago

দেশবাসীকে বাংলা নববর্ষের শুভেচ্ছা জানালেন প্রধানমন্ত্রী

বাংলা নববর্ষ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ  উপলক্ষে দেশবাসীকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আগামী রোববার (১৪ এপ্রিল) দেশজুড়ে উদযাপিত হবে বাংলা নববর্ষ।...

ক্রিকেট2 hours ago

পা ভাঙ্গার ভয়ে ২-৩ বছর বুমরাহ’র বল খেলেননি সূর্যকুমার!

‘জাসপ্রিত বুমরাহকে নিজেদের দলে পাওয়া সবসময়ই দারুণ। আর গত দুই-তিন বছরে নেটে কখনই আমি তার বল মোকাবিলা করিনি। কারণ সে...

ফায়ার-সার্ভিস ফায়ার-সার্ভিস
জাতীয়3 hours ago

নিয়ন্ত্রণে এসেছে বাড্ডার আগুন

নিয়ন্ত্রণে এসেছে রাজধানীর বাড্ডার সাঁতারকুল ইয়াসিন নগরে গ্যারেজে লাগা আগুন। ফায়ার সার্ভিসের আধা ঘণ্টার চেষ্টায় শুক্রবার (১২ এপ্রিল) দুপুর পৌনে...

আগুন আগুন
দুর্ঘটনা4 hours ago

এবার বাড্ডায় আগুন

রাজধানীর বাড্ডায় একটি গ্যারেজে আগুন লাগার ঘটনা ঘটেছে। ঘটনাস্থলে যাচ্ছে ফায়ার সার্ভিস। শুক্রবার (১২ এপ্রিল) দুপুরে এ দুর্ঘটনা ঘটে। এর...

আগুন আগুন
দুর্ঘটনা6 hours ago

হাজারীবাগে বস্তিতে আগুন

রাজধানীর হাজারীবাগ বেড়িবাঁধ এলাকায় একটি বস্তিতে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। আগুন নিয়ন্ত্রণে কাজ করছে ফায়ার সার্ভিসের ৭টি ইউনিট। শুক্রবার (১২ এপ্রিল)...

বার্ণ ইউনিট বার্ণ ইউনিট
দুর্ঘটনা8 hours ago

গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণে নারী-শিশুসহ দগ্ধ ৬

রাজধানীর মিরপুরের ভাসানটেকে গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণে নারী-শিশুসহ ৬ জন দগ্ধ হয়েছেন। দগ্ধরা হলেন, মেহরুন্নেছা (৬৫), সূর্য বানু (৩০), লিজা(১৮), লামিয়া...

আগুন আগুন
দুর্ঘটনা8 hours ago

এস আলমের অয়েল মিলে আগুন, নিয়ন্ত্রণে ৪ ইউনিট

চট্টগ্রামে মইজ্জারটেক এলাকায় অবস্থিত এস আলম এডিবল অয়েল মিলে আগুন লেগেছে। শুক্রবার (১২ এপ্রিল) সকাল ৮টা ২০ মিনিটের দিকে আগুনের...

জাতীয়21 hours ago

সম্প্রীতির বন্ধনকে যেন আরও দৃঢ় করতে পারি :পররাষ্ট্রমন্ত্রী

মহান আল্লাহর কাছে প্রার্থনা আমাদের দেশে যে সম্প্রীতি আছে, সেই সম্প্রীতির বন্ধনকে যেন আরও দৃঢ় করতে পারি। একই সঙ্গে আমাদের...

দুর্ঘটনা22 hours ago

ঈদের দিন মোটরসাইকেল কেড়ে নিলো ৮ প্রাণ

ঈদের আনন্দে মোটর সাইকেল নিয়ে ঘুরতে বেড়িয়ে সড়কে প্রাণ গেলো ৮ জনের। পঞ্চগড়, নেত্রকোনা, ও খাগড়াছড়ি জেলায়  মোটরসাইকেল দুর্ঘটনার নিহতের...

দেশজুড়ে23 hours ago

ঈদে বিজিবি-বিএসএফ মিষ্টি বিনিময়

পবিত্র ঈদুল ফিতরের আনন্দ ভাগাভাগি করে নিতে দিনাজপুরের হিলি সীমান্তে বিজিবি ও ভারতীয় সীমান্ত রক্ষীবাহিনী (বিএসএফ) একে অপরকে মিষ্টি উপহার...

Advertisement
সৌদি আরব
আন্তর্জাতিক5 days ago

সৌদি আরবে ঈদ কবে- যা জানা গেলো

জনদুর্ভোগ5 days ago

ঢাকাকে আলোকিত করতে গ্রামের বিদ্যুৎ ছিনিয়ে নেয়া হচ্ছে

সৌদি আরব
আন্তর্জাতিক4 days ago

সৌদিতে ঈদ বুধবার

আন্তর্জাতিক2 days ago

বিড়াল বাঁচাতে গিয়ে একই পরিবারের ৫ জন নিহত

সেনাবাহিনী প্রধান
বাংলাদেশ5 days ago

বিচ্ছিন্নতাবাদীদের দমনে কম্বিং অপারেশন শুরু: সেনাপ্রধান

টুকিটাকি6 days ago

মহাকাশে তারার বিস্ফোরণ, জীবনে দেখা যাবে একবারই

আন্তর্জাতিক4 days ago

ঈদের তারিখ জানালো অস্ট্রেলিয়া

বিএনপি4 days ago

ব্যারিস্টার খোকনকে বহিস্কারের সিদ্ধান্ত পাঠানো হয়েছে লন্ডনে

আন্তর্জাতিক5 days ago

৬ মাসে হামাসকে কতটুকু ধ্বংস করতে পেরেছে ইসরায়েল

চাঁদপুর,-তরুণীর-লাশ
চট্টগ্রাম5 days ago

প্রেমিকের সঙ্গে পালিয়ে এসে লাশ হলেন তরুণী

প্রধানমন্ত্রী-শেখ-হাসিনা
জাতীয়2 weeks ago

গায়ের চাদর না পুড়িয়ে বউদের ভারতীয় শাড়ি পোড়ান: প্রধানমন্ত্রী

ফুটবল3 weeks ago

ইংল্যান্ডকে হারিয়ে ব্রাজিল কোচ জানালেন এটা মাত্র শুরু

টুকিটাকি3 weeks ago

জিলাপির প্যাঁচে লুকিয়ে আছে যে রহস্য!

অর্থনীতি4 weeks ago

বাজারে লেবুর সরবরাহ বেশি, তবুও দাম চড়া

রেশমা
বাংলাদেশ1 month ago

রাজধানীতে অচেতন অবস্থায় উদ্ধার কিশোরীর ঠিকানা খুঁজছে পুলিশ

হলিউড1 month ago

নীল দুনিয়ায় অভিনেত্রী সোফিয়ার রহস্যজনক মৃত্যু

ফুটবল1 month ago

জামালকে ঠিকঠাক বেতন দেয়নি আর্জেন্টাইন ক্লাব

টুকিটাকি1 month ago

রণবীরের ‘অ্যানিম্যাল’ দেখে শখ, মাইনাস ২৫ ডিগ্রিতে বসলো বিয়ের আসর

অর্থনীতি1 month ago

গরুর মাংসের দাম কেজি প্রতি পৌনে ৬ লাখ টাকা!

অপরাধ2 months ago

ডিবিতে যে অভিযোগ দিলেন তিশার বাবা

সর্বাধিক পঠিত