Connect with us

দেশজুড়ে

পরকীয়ার জেরে প্রেমিকের হাতে দুই সন্তানের জননী খুন

Avatar of author

Published

on

পঞ্চগড়ের দেবীগঞ্জে পরকীয়া প্রেমের জেরে প্রেমিকের হাতে শাহনাজ পারভীন (২৫) নামে দুই সন্তানের জননী খুন হয়েছেন। নিহত শাহনাজ পারভীন দেবীগঞ্জ উপজেলার চিলাহাটি ইউনিয়নের আব্দুল মজিদের স্ত্রী। এ ঘটনায় অভিযুক্ত রাজু পলাতক রয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১১ এপ্রিল) সকালে দেবীগঞ্জ উপজেলার চিলাহাটি ইউনিয়নের মতিয়ারপাড়া গ্রামে এ ঘটনাটি ঘটে বলে বায়ান্ন টিভিকে নিশ্চিত করেছেন দেবীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সরকার ইফতেখারুল মোকাদ্দেম।

স্থানীয়রা জানান, দীর্ঘদিন ধরে নিহত শাহনাজের স্বামী মজিদ গার্মেন্টসসহ বিভিন্ন স্থানে কাজ করার সুবাদে ঢাকায় থাকতো। দুই বছর আগে প্রতিবেশী আইনুলের ছেলে রাজুর (২৭) সাথে পরকীয় প্রেমের সম্পর্কে জড়িয়ে পড়ে শাহনাজ। এক সময় কোন এক কারণে তাদের পরকীয়া প্রেম ভেঙ্গে যায়।

এদিকে ঈদের দিন  সকালে স্বামীসহ পরিবারের অন্য সদস্যরা ঈদের নামাজ পড়তে ঈদগাহে গেলে। আগে থেকে  উৎপেতে থাকা রাজু শাহনাজের বাড়িতে যায়। এর মাঝে শাহনাজের বড় মেয়ের সামনে শোবার ঘরে ধারালো দেশী অস্ত্র (ছুরি) দিয়ে এলোপাতারি আঘাত করে গলা কেটে পালিয়ে যায়।

নিহতের মেয়ে মাইশা আক্তার জানান,তাঁর মাকে ছুরি দিয়ে মারে। সে চিৎকার দিলে দৌড়ে পালিয়ে যান রাজু।

Advertisement

এসময়ে  কান্না ও চিৎকারে স্থানিয়রা এগিয়ে এলে শাহনাজের গলাকাটা মরদেহ দেখতে পেয়ে থানা পুলিশ ও ইউনিয়ন পরিষদে খবর দেয়।

পুলিশ জানায়, ৮/৯ মাস আগে কিছুদিন অভিযুক্ত রাজু ও নিহত শাহনাজ নিখোঁজও ছিলেন। এ ঘটনায় থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করা হয়। কিছুদিন পর বাড়ি ফিরলে প্রথমে স্বামী তাকে গ্রহণ করতে রাজি হননি। একপর্যায়ে দুজনে সমঝোতায় আবারও সংসার শুরু হয়।

গৃহবধূর স্বামী আব্দুল মজিদ বলেন, রাজুর সঙ্গে তাঁর স্ত্রী মোবাইলে কথা বলতো। চলেও গেছিল রাজুর সঙ্গে। সন্তানদের দিকে চেয়ে শাহনাজকে  নিয়ে ঢাকায় চলে যান। রাজু দীর্ঘদিন ধরেই তাকে হুমকি দিয়ে আসছিলো, যে তাকে ও শাহনাজের সঙ্গে সংসার করতে দিবে না।

দেবীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সরকার ইফতেখারুল মোকাদ্দেম জানান, মরদেহের পাশ থেকে একটি রক্তমাখা ছুরি উদ্ধার করা হয়েছে। ময়নাতদন্তের জন্য  মরদেহ মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। পলাকত রাজুকে আটকের চেষ্টা চলছে।

প্রসঙ্গত, ভুক্তভোগী দম্পত্তির ৬ বছরের একটি মেয়ে ও একটি ৪ মাস বয়সী ছেলে সন্তান রয়েছে। এ বিষয়ে মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

Advertisement
Advertisement

রংপুর

পাচারের উদ্দেশ্যে লুকিয়ে রাখা বিষ্ণুমূর্তিসহ গ্রেপ্তার ১  

Published

on

নিলফামারীর সৈয়দপুরে বিষ্ণু মূর্তিসহ শফিকুল ইসলাম (৪২) নামে এক ব্যক্তিকে আটক করেছে র‍্যাব। বিষ্ণুমূর্তিটি ভারতের পাচারের উদ্দেশ্যে বাড়িতে লুকিয়ে রেখেছিলেন তিনি।

রোববার (১৯ মে) সৈয়দপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহা আলম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন। অভিযুক্ত শফিকুলকে জেলহাজতে প্রেরণ করেন আদালত।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, আটক শফিকুল সৈয়দপুর উপজেলার কাশীরাম বেলপুকুর ইউনিয়নের পুকুরপাড়ার খলিল উদ্দিনের ছেলে।  গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‍্যাব-১৩-এর একটি দল গেলো শনিবার (১৮ মে) বেলা ৩টায়  শফিকুলের বাড়ীতে অভিযান চালালে তাকে তার বাড়ী থেকে গ্রেপ্তার করা হয় ।  পরে তার দেওয়া তথ্যমতে ঘরে রাখা কালো পাথরের একটি বিষ্ণুমূর্তি উদ্ধার করে।র‍্যাব ১৩।

মূর্তিটির দৈর্ঘ্য ১১ ইঞ্চি এবং প্রস্থ ৬ ইঞ্চি। বাজারে এর আনুমানিক মূল্য সাড়ে ছয় লাখ টাকা।  এ ঘটনায় আজ সৈয়দপুর থানায় ১৯৭৪ সালের বিশেষ ক্ষমতা আইনে একটি মামলা হয়েছে বলে জানান পুলিশ ।

এএম/

Advertisement
পুরো পরতিবেদনটি পড়ুন

চট্টগ্রাম

বজ্রপাতে প্রাণ গেলো দুই শিক্ষার্থীর

Published

on

শিক্ষার্থী মাহাদি হাসান

ফেনীর ছাগলনাইয়ায় বজ্রপাতে দুই শিক্ষার্থীর মৃত্যু হয়েছে। নিহতরা হলেন বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তিচ্ছু মাহাদি হাসান এবং স্থানীয় নিকুঞ্জরা মাদরাসার দশম শ্রেনির শিক্ষার্থী শাহীন মাহমুদ অভি।

রোববার (১৯ মে) দুপুরে ছাগলনাইয়া উপজেলার উত্তর কুহুমা এবং দক্ষিণ লাঙ্গল মোড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে বলে গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন ছাগলনাইয়া থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হাসান ইমাম।

নিহতদের স্বজনেরা জানান, দুপুরে বৃষ্টি শুরু হলে মাঠে গরু আনতে যান মাহাদি। সেখানেই হঠাৎ বজ্রপাতে তার শরীরের বিভিন্ন অংশ ঝলসে যায়। পরে স্থানীয়রা উদ্ধার করে ছাগলনাইয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। একই সময় ঘোপালের দক্ষিণ লাঙ্গল মোড়া এলাকায় বাড়ির পাশে মাঠে গরু আনতে গিয়ে বজ্রপাতে প্রাণ হারান অভি।

ছাগলনাইয়া থানার ওসি জানান, দুপুরে পৃথক স্থানে বজ্রপাতে দুইজনের মৃত্যু হয়েছে। পরিবারের আবেদনের প্রেক্ষিতে তাদের মরদেহ ময়নাতদন্ত ছাড়াই হস্তান্তর করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, ঘটনার পরে ছাগলনাইয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নিহত মাহাদির বাড়ি পরিদর্শন করেছেন। দুই শিক্ষার্থীর মৃত্যুর ঘটনায় এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

Advertisement

আই/এ

পুরো পরতিবেদনটি পড়ুন

রংপুর

১ টাকায় ১০ টি পরিবেশ বান্ধব পাখা বিক্রি

Published

on

কুড়িগ্রাম জেলার প্রত্যন্ত চরাঞ্চলের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে এক টাকার বিনিময়ে ১০টি পরিবেশ বান্ধব পাখা উপহার দিচ্ছে স্বেচ্ছাসেবী সামাজিক সংগঠন ফাইট আনটিল লাইট (ফুল)। তীব্র গরমে স্কুলের শিক্ষার্থীদের পড়াশোনার ভোগান্তি দূর ও পাঠদানের সুবিধার্থে এমন ব্যতিক্রম উদ্যোগ নেয় সংগঠনটি।

রোববার (১৯ মে) দুপুরে কুড়িগ্রাম সদর উপজেলার পাঁচগাছি ইউনিয়নের আরাজী কদমতলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের হাতে এসব পাখা তুলে দেন বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক হাসিনা আক্তার বানু এবং ফুলের নির্বাহী পরিচালক মো. আব্দুল কাদের।

ফুল শিক্ষা স্বাস্থ্য ও অসহায় বাবা মায়ের মুখে হাসি ফোটাতে প্রায় দুই যুগ ধরে কাজ করে আসছে।চরাঞ্চলের শতাধিক বিদ্যালয়ে এক টাকায় খাতা কলম বিক্রি করে আসছে। এরই ধারাবাহিকতায় তীব্র তাপদাহে শিক্ষার্থীর ভোগান্তি ও কষ্টের কথা চিন্তা করে চরাঞ্চলের বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে এক টাকার বিনিময় ১০টি করে পরিবেশ বান্ধব পাখা বিক্রি করা হয়।

হাত পাখা পেয়ে শিক্ষার্থী আকলিমা খাতুন বলেন, আমাদের স্কুলে বিদ্যুৎ সব সময় থাকে না। গরমে ক্লাসের বই খাতা নিয়ে শরীরে বাতাস করতে হয়।এতে বই খাতা নষ্ট হয়ে যায়। আজ ফুল সংগঠনের পরিবেশ বান্ধব হাত পাখা পাইলাম।আমাদের আর কষ্ট হবে না।

আরেক শিক্ষার্থী রাজু আহমেদ বলেন,গত কয়েক দিন ধরে প্রচুর গরম। কারেন্ট ঠিক মত থাকে না।খুব কষ্ট হয়।আজ ফুলের পরিবেশ বান্ধব পাখা পেয়ে খুব ভালো লাগলো।

Advertisement

আরাজী কদমতলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক হাসিনা আক্তার বানু বলেন, এ অঞ্চলে পল্লি বিদ্যুৎ সব সময় থাকে না। ফলে তীব্র গরমে স্কুলের বাচ্চাদের কষ্ট হতো। হাতে যা পাই তা দিয়ে গরম নিবারণের চেষ্টা করি। ফুল সংগঠন চরাঞ্চলের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে এক টাকায় ১০টি পরিবেশ বান্ধব পাখা বিক্রি করছে। আমি স্কুলের শিক্ষার্থীদের জন্য ২ টাকায় ২০ টি হাত পাখা কিনলাম। যা বাইরে দোকান থেকে প্রায় ৬ শত টাকায় কিনতে হতো। এখন বাচ্চাদের তেমন ভোগান্তিতে পড়তে হবে না। এমন উদ্যোগ নেয়ার জন্য ফুলকে ধন্যবাদ জানাই। তাদের এ কাজ গুলো অব্যাহত থাকুক।

ফাইট আনটিল লাইট (ফুল) এর নির্বাহী পরিচালক আব্দুল কাদের বলেন, ফুল একটি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন। মানুষের কল্যাণে সবসময় কাজ করার চেষ্টা করছে। আমরা চরাঞ্চলের শিক্ষার্থীদের কথা চিন্তা করে সপ্তাহ ব্যাপী পরিবেশ বান্ধব পাখা বিক্রির উদ্যোগ নিয়েছি। আগামীতেও এ ধারা অব্যাহত থাকবে বলে জানান তিনি।

এএম/

পুরো পরতিবেদনটি পড়ুন

সর্বাধিক পঠিত