Connect with us

তথ্য-প্রযুক্তি

সাধ্যের মধ্যেই মিলবে অপো’র স্মার্টফোন

Avatar of author

Published

on

গাছের পাতার রং পরিবর্তন ও ফুরফুরে হাওয়ার মাধ্যমে শরত্কাল যেমন প্রকৃতিকে রাঙিয়ে দেয়, তেমনি শীর্ষস্থানীয় গ্লোবাল স্মার্টফোন টেকনোলজি কোম্পানি ‘অপো’ এর জনপ্রিয় ‘অপো এ১৭কে’ এবং ‘অপো এ৭৭’ স্মার্টফোনের দাম কমানোর এক দারুণ খবর নিয়ে এ মৌসুম শুরু করছে। ৯ সেপ্টেম্বর থেকে ডিভাইসগুলোর মূল্যহ্রাস শুরু হওয়ার পর, ইউজাররা অত্যাধুনিক প্রযুক্তিকে আরও সহজেই পাচ্ছেন তাদের হাতের নাগালে।

স্টাইলিশ এবং ফিচার-সমৃদ্ধ ‘অপো এ১৭কে’ স্মার্টফোনের আগের দাম ছিল ১৪,৯৯০ টাকা, যা কমিয়ে এখন ১৩,৯৯০ টাকা করা হয়েছে। এছাড়া ৩৩-ওয়াট সুপারকিক চার্জিংয়ের জন্য বিখ্যাত ‘অপো এ৭৭’ এখন ১৯,৯৯০ টাকায় পাওয়া যাচ্ছে, যার পূর্ব মূল্য ছিল ২০,৯৯০ টাকা। এই শরৎ-এক্সক্লুসিভ মূল্য সংশোধনের কারণে বাংলাদেশি ইউজাররা কোনো রকম আর্থিক চাপ ছাড়াই এই স্মার্টফোনগুলো উপভোগ করতে পারবেন।

‘অপো এ১৭কে’ স্মার্টফোনে এখন আরও আকর্ষণীয় মূল্যছাড় দেওয়া হয়েছে, যা উদ্ভাবনকে সর্বস্তরে পৌঁছে দেওয়ার প্রতি অপো’র প্রতিশ্রুতির উদাহরণ। উন্নত ফিচার এবং অত্যাধুনিক প্রযুক্তিতে তৈরি ‘অপো এ১৭কে’ কোনো রকম বিঘ্ন ছাড়াই একটি নিরবচ্ছিন্ন এবং সন্তোষজনক ইউজার এক্সপেরিয়েন্স দিবে। স্টাইলিশ বডির সঙ্গে ডিভাইসটিতে রয়েছে একটি ৫০০০এমএএইচ এর দীর্ঘস্থায়ী ব্যাটারি যা সারাদিনের ব্যাটারির পাওয়ার নির্ভরযোগ্যতা নিশ্চিত করে। ফোনটিতে ৪ জিবি পর্যন্ত র‌্যাম বৃদ্ধির সুবিধাসহ হাই- ডিমান্ডিং অ্যাপগুলোও কম ল্যাগসহ নির্বিঘ্নে চালানো যাবে। এর সাইড ফিঙ্গারপ্রিন্ট আনলক ফিচার নিরাপদ এবং দ্রুত ডিভাইস অ্যাক্সেস নিশ্চিত করে, এবং এর আইপিএক্স৪ পানি নিরোধক প্রযুক্তি ডিভাইসে পানি ঢুকে তা নষ্ট হওয়ার হাত থেকে সুরক্ষার নিশ্চয়তা দেয়। এক কথায়, ইউজাররা সাশ্রয়ী মূল্যে একটি বিশাল প্যাকেজ পাচ্ছেন।

বেশ হালকা ও নান্দনিক ডিজাইনের ‘অপো এ৭৭’ যেন ঠিক পকেট-সাইজের একটি শিল্পকর্ম। স্মার্টফোনটির ৩৩-ওয়াট সুপারকিক চার্জিং ক্ষমতার কারণে ইউজাররা চলাফেরার সময় তাদের সুবিধামতো ফোনে চার্জ দিতে পারে। এমনকি কোলাহলপূর্ণ পরিবেশেও স্পিকারের আল্ট্রা-ভলিউম মোড সঙ্গীতে নিমগ্ন হওয়ার আনন্দের অভিজ্ঞতাকে বাড়িয়ে তোলে। গেমিং বা কন্টেন্ট ব্যবহারের সময় ডিভাইসটির ৬.৫৬-ইঞ্চি কালার-রিচ ডিসপ্লে ইউজারদের প্রাণবন্ত অভিজ্ঞতা দিয়ে থাকে। ৫০ মেগা পিক্সেল এআই ডুয়াল ক্যামেরা পরিষ্কার, উচ্চ-মানের ফটোগ্রাফের গ্যারান্টি দেয়, যেখানে বোকেহ ডেপথ ক্যামেরা পোর্ট্রেটগুলিতে একটি প্রফেশনাল টাচ যোগ করে। অপো এ১৭কে এবং অপো এ৭৭ স্মার্টফোন এখন নতুন সামঞ্জস্য বা দামে বাংলাদেশের সকল অনুমোদিত অপো স্টোরগুলিতে পাওয়া যাচ্ছে।

এএম/

Advertisement
Advertisement

তথ্য-প্রযুক্তি

বাজারে এসেছে বেঙ্গল মোবাইলের ইকো সিরিজের প্রথম হ্যান্ডসেট

Published

on

বেঙ্গল-ফোন

সম্প্রতি বাজারে এসেছে বেঙ্গল মোবাইলের নতুন ইকো সিরিজের BG103 BD হ্যান্ডসেট। এটি এই সিরিজের প্রথম হ্যান্ডসেট।

শুক্রবার (১২ জুলাই) রাজধানীর একটি অডিটোরিয়ামে লিনেক্স ইলেকট্রনিকস বাংলাদেশ লিমিটেড এর ম্যানেজিং ডিরেক্টর জনাব হুমায়ন কবির বাবলু আনুষ্ঠানিক ভাবে হ্যান্ডসেটটি উদ্বোধন করেন।

এসময় অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন লিনেক্স ইলেকট্রনিকস বাংলাদেশ লিমিটেড এর চিফ অপারেটিং অফিসার(সিওও) প্রকৌশলী জনাব নাহিদুল ইসলাম, গ্রুপ অফ হেড (এইচআর) জনাব হাসান তৈয়ব ইমাম সহ প্রতিষ্ঠানটির কর্মকর্তা কর্মচারী বৃন্দ।

বেঙ্গল-মোবাইল

হ্যান্ডসেটটিতে আছে আন্তর্জাতিক মানের মাদারবোর্ড সাথে হাই কোয়ালিটি MTK প্রসেসর। এছাড়াও গ্রাহক আরও পাচ্ছেন ১৮০ দিনের ব্যাটারি ও চার্জার রিপ্লেসমেন্ট গ্যারান্টি,৩৬৫ দিন LCD পরিবর্তন গ্যারান্টি এবং ৩৬৫ দিন প্রাপ্ত বিক্রয়োত্তর সেবা। ১.৭৭” ইঞ্চি ডিসপ্লের এই হ্যান্ডসেটটি ডুয়েল সিমকার্ড সম্বলিত। তিনটি আকর্ষণীয় কালার সমৃদ্ধ এ মোবাইলটিতে আরোও থাকছে কিং ভয়েস, ওয়্যারলেস এফএম, টর্চ, ১০০০-ফোনবুক, অটো কল রেকর্ডার, স্পিড ডায়াল ফিচার সহ আরও অনেক ফিচার।

বেঙ্গল ফোনের চিফ অপারেটিং অফিসার প্রকৌশলী নাহিদুল ইসলাম জানান, গুণগত মান সম্পন্ন ও আকর্ষণীয় ডিজাইনের হ্যান্ডসেট গুলো বাংলাদেশে আমাদের নিজস্ব কারখানায় চার্জার ব্যাটারি সহ মোবাইল ফোনের পিসিবএ উৎপন্ন করা হচ্ছে। গুণগত মান সম্পন্ন ইকো সিরিজের এই প্রোডাক্ট আরও সাশ্রয়ী মূল্যে গ্রাহকের কাছে পৌঁছানোই আমাদের মূল লক্ষ্য। তারই ধারাবাহিকতায় BG103 হ্যান্ডসেটটির ডিজাইনে করা হয়েছে। ইকো সিরিজের এই মডেলে আধুনিকতার ছোঁয়া এবং ১০০% কোয়ালিটি নিশ্চিত করা হয়েছে যা ক্রেতা সাধারণকে দিবে দীর্ঘদিন ব্যবহারের নিশ্চয়তা।

Advertisement

 

এসি//

পুরো পরতিবেদনটি পড়ুন

তথ্য-প্রযুক্তি

আজ কমে যেতে পারে ইন্টারনেটের গতি

Published

on

রক্ষণাবেক্ষণ কাজের জন্য কক্সবাজারে দেশের প্রথম সাবমেরিন কেবল (সিমিউই-৪) আজ শনিবার (১৩ জুলাই) সকাল ৬টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত মোট ১২ ঘণ্টা আংশিকভাবে বন্ধ থাকবে।  ফলে সারাদেশে নিরবচ্ছিন্ন ইন্টারনেট ব্যবস্থাপনায় কিছুটা ধীরগতি হতে পারে।

শুক্রবার (১২ জুলাই) বিকেলে বাংলাদেশ সাবমেরিন কেবলস কোম্পানি লিমিটেড পিএলসি (বিএসসিপিএলসি) সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে নিশ্চিত করেছে এ তথ্য।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, সাবমেরিন কেবল (সিমিউই-৪) সিস্টেমের সিঙ্গাপুর প্রান্তে কনসোর্টিয়াম কর্তৃক গৃহীত রক্ষণাবেক্ষণ কাজ করার জন্য শনিবার (১৩ জুলাই) সকাল ৬টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত প্রায় ১২ ঘণ্টা এ কেবলের মাধ্যমে সংযুক্ত সার্কিটগুলো আংশিক বন্ধ থাকবে। এ কারণে দেশের বিভিন্ন জায়গায় নিরবচ্ছিন্ন ইন্টারনেট সেবা ব্যাহত হতে পারে।

এতে গ্রাহকদের সাময়িক অসুবিধার জন্য দুঃখ প্রকাশ করেছে বিএসসিপিএলসি। তবে এই সময় কুয়াকাটায় দেশের দ্বিতীয় সাবমেরিন কেবল (সিমিউই-৫) যথারীতি চালু থাকবে বলেও সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়।

 

Advertisement

 

পুরো পরতিবেদনটি পড়ুন

তথ্য-প্রযুক্তি

ফিলিস্তিনিদের জন্য সেবা বন্ধ করলো মাইক্রোসফট

Published

on

মাইক্রোসফটের বিরুদ্ধে গুরুতর অভিযোগ এনেছেন  অভিবাসী ফিলিস্তিনিরা । তারা জানিয়েছেন পূর্ব নির্দেশনা না দিয়েই মাইক্রোসফট তাদের ই-মেইল অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দিয়েছে। অনলাইনের অন্য সব সেবা থেকেও বঞ্চিত হচ্ছে বলে অভিযোগ তাদের।

বৃহস্পতিবার ( ১১ জুলাই)এক প্রতিবেদনে বিষয়টি নিশ্চিত করে বৃটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি।

ভুক্তভোগী অভিবাসীরা জানান, মাইক্রোসফট তাদের ব্যাংক অ্যাকাউন্ট এবং চাকরির বিজ্ঞপ্তিগুলোর সকল অ্যাক্সেস বন্ধ করে দিয়েছে। অপরদিকে মাইক্রোসফ্টের মালিকানাধীন স্কাইপিও ব্যবহার করতে পারছেন না তারা। ফলে যুদ্ধ-বিধ্বস্ত গাজায় তাদের আত্মীয়দের সঙ্গে যোগাযোগ বন্ধ হয়ে গেছে।

তবে মাইক্রোসফটের দাবি যাদের অ্যাকাউন্ট বন্ধ করা হয়েছে তারা এই সার্ভিসটি ব্যবহারের শর্ত ভঙ্গ করেছেন।

সৌদি আরবে ফিলিস্তিনি অভিবাসী করাইয়াদ হামেতো বিবিসিকে বলেন,মাইক্রোসফট অনলাইনে তাকে মেরে ফেলেছে। তিনি ২০ বছর ধরে যে ই-মেইল অ্যাকাউন্টটি ব্যবহার করতেন, সেটি তারা স্থগিত করেছে। ।

Advertisement

তিনি আরও বলেন, স্কাইপে যোগাযোগ করতে না পারা তার পরিবারের জন্য একটি বড় ধাক্কা। ফিলিস্তিনে ইসরাইলের অভিযানের সময় সবসময় ইন্টারনেট বন্ধ থাকে। তাছাড়া আন্তর্জাতিক কল সেখানে খুবই ব্যয়বহুল। স্কাইপের সাবস্ক্রিপশন কিনে কম খরচে গাজায় মোবাইলে ফোন করা যায়। এমনকি ইন্টারনেট সুবিধা না থাকলেও। তাই এই সুবিধা অনেক ফিলিস্তিনিদের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

ধারনা করা হচ্ছে , হামাসের সঙ্গে সম্পৃক্ততার সন্দেহে তাদের অ্যাকাউন্ট বন্ধ করা হয়েছে। কারণ হামাসকে সন্ত্রাসী সংগঠন হিসেবে চিহ্নিত করা হয়ে থাকে বিশ্বের অনেক দেশে ।

তবে ইয়াদ হামেতো হামাসের সঙ্গে যোগাযোগ থাকার কথা অস্বীকার করে বলেন,তাদের পরিবারের কোন রাজনৈতিক ব্যাকগ্রাউন্ড নেই। একেবারেই সাধারণ মানুষ । শুধু পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ রাখার চেষ্টা করেন।

হামাসের সঙ্গে যোগাযোগ আছে এমন অভিযোগেই অ্যাকাউন্ট বন্ধ করা হয়েছে কিনা এমন বিষয়ে বিবিসি জানতে চাইলে, মাইক্রোসফ্ট সরাসরি কোন প্রতিক্রিয়া জানায়নি।

জেড/এস

Advertisement
পুরো পরতিবেদনটি পড়ুন

সর্বাধিক পঠিত